ঢাকাশনিবার , ২০ অগাস্ট ২০২২
  1. সর্বশেষ
  2. বিশেষ সংবাদ

মা হলেন নুসরাত হত্যা মামলায় কারাবন্দি কামরুন নাহার মণি

প্রতিবেদক
নিউজ ভিশন
২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২:১৮ অপরাহ্ণ

Link Copied!

এম.এ ওয়াহিদ :

ফেনীর আলোচিত মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত হত্যা মামলায় কারাবন্দি কামরুন নাহার মণি মা হয়েছেন।

শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ফেনী জেনারেল হাসপাতালে কন্যা সন্তান প্রসব করেন তিনি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে হাসপাতাল সূত্র জানান, মা ও মেয়ে দুজনই সুস্থ রয়েছেন। এর আগে পাঁচ মাসের গর্ভের সন্তান নিয়েই নুসরাত কিলিং মিশনে অংশ নেয় মণি।

গত ২১ এপ্রিল শনিবার ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় ফেনীর জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শরাফ উদ্দিন আহমেদের আদালতে মণি এ জবানবন্দি দেন। ২২ এপ্রিল রোববার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) চট্টগ্রামের বিশেষ পুলিশ সুপার মো. ইকবাল সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান।

একই দিন ফেনীর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শরাফ উদ্দিন আহমেদের আদালতে ১৬৪ ধারার এ জবানবন্দি দেয় এ মামলার অন্যতম আসামি জোবায়ের। জবানবন্দি রেকর্ড করার সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) চট্টগ্রামের বিশেষ পুলিশ সুপার মো. ইকবাল রবিবার সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন।

জোবায়েরের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, মাদ্রাসার সাইক্লোন শেল্টারের ছাদে ম্যাচের কাঠি দিয়ে নুসরাতের গায়ে আগুন ধরায় জোবায়ের। রাফিকে ছাদে ডেকে নিয়ে যায় পপি। সেখানে আগে থেকেই আমি (জোবায়ের) অপেক্ষা করছিলাম। আমার সঙ্গে ছিলেন মণি, পপি, শাহাদাত ও জাবেদ। রাফি ছাদে এলে আমরা তাকে অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে মামলা তুলে নিতে চাপ দিই।

এতে নুসরাত রাজি না হলে তার হাত-পা বেঁধে ছাদে শুইয়ে ফেলি। এরপর রাফির পা চেপে ধরেন পপি, মুখ চেপে ধরেন শাহাদাত, মণি বুক চেপে ধরেন, জাবেদ কেরোসিন ঢালেন এবং আমি (জোবায়ের) দিয়াশলাই দিয়ে গায়ে আগুন ধরাই।

নুসরাত জাহান রাফি হত্যার কিলিং মিশনে সরাসরি জড়িত ছিল কামরুন নাহার মণি। নুসরাতের বুকসহ শরীর চেপে ধরেন এবং তিনি বোরকা ব্যবস্থা করে দেন।

প্রসঙ্গত, গত ৬ এপ্রিল ফেনীর সোনাগাজীতে মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি আলিম পরীক্ষা দিতে যান। পরীক্ষার আগে তাকে কৌশলে ছাদে ডেকে নিয়ে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা করা হয়। ১০ এপ্রিল রাত সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে নুসরাত মারা যান। সরাসরি কিলিং মিশনে অংশ নেয় পাঁচজন। তারা হল- শাহাদাত হোসেন শামীম, জোবায়ের হোসেন, জাবেদ হোসেন, কামরুন নাহার মণি ও উম্মে সুলতানা পপি। এ ঘটনায় ৮ এপ্রিল রাতে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন অগ্নিদগ্ধ রাফির বড় ভাই মাহমুদুল হাসান নোমান।

আরও পড়ুন

নোয়াখালীতে মাদকসেবীর এক বছরের কারাদন্ড

অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বাংলাদেশ গড়তে হবে: জন্মাষ্টমী’র আলোচনায় ববি উপাচার্য।

কমলগঞ্জে জন্মাষ্টমীর নিয়ে
বিরুপ মন্তব্যে ব্যবসায়ী গ্রেফতার

পররাষ্ট্রমন্ত্রী
ড. মোমেনের বক্তব্যে রাজনীতিতে তোলপাড়

সাংবাদিক আব্দুল বাছিত খানের উপর হামলার প্রতিবাদে শেরপুর প্রেসক্লাব এর মানববন্ধন

দোয়ারাবাজারে টিডব্লিউএ নির্বাচন: চেয়ারম্যান প্রার্থী মিষ্টার প্রত্যুষ সাংমা’র নিরঙ্কুশ বিজয়

রাণীনগরে শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমী উপলক্ষে মঙ্গল শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

সুন্দরগঞ্জে জন্মাষ্টমী পালিত

জবি ক্যারিয়ার ক্লাবের ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত

বাঁদুর ঝুলা যাত্রী বহনের দায়ে রাঙামাটিতে চান্দের গাড়িকে জরিমানা

ঢাবির জিয়া হলে শিক্ষার্থীকে পুলিশে সোপর্দের ঘটনায় ছাত্র ফ্রন্ট এর প্রতিবাদ

জ্বালানি তেল সহ নিত্যপন্যের মূল্যবৃদ্ধি ও সরকারের পদত্যাগের দাবিতে এবি পার্টির বিক্ষোভ