কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমানের বৌ ভাত ১৩ জুলাই

received_1295987710564344.png

শেখ রিপন, সাতক্ষীরা অফিস :
বাংলাদেশি ক্রিকেটার কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমান বিয়ের পিঁড়িতে বসেছিলেন চলতি বছরের ২২ মার্চ। কনে তারই মামাতো বোন সামিয়া পারভীন শিমু।
বিয়ের সময় বর ও কনের স্বজনরা জানিয়েছিলেন, একেবারে ঘরোয়া পরিবেশে স্বজনদের সঙ্গে নিয়ে প্রাথমিকভাবে শেষ করা হয়েছে বিয়ের অনুষ্ঠান। এরপর ধুমধাম করে অনুষ্ঠান হবে বিশ্বকাপের পর। তখন আমন্ত্রণ জানানো হবে সবাইকে।
অপেক্ষার প্রহর শেষ। আর মাত্র কয়েকটা দিন। নতুন করে বর-বধূ বেশে বৌভাত অনুষ্ঠানে আসবেন মোস্তাফিজ ও শিমু।
বৌভাতের পর নববধূ শিমুকে তুলে নেওয়া হবে সাতক্ষীরার কালিগঞ্জ উপজেলার তারালি ইউনিয়নের তেঁতুলিয়ায় গ্রামে মোস্তাফিজের বাড়িতে।
আগামী শনিবার (১৩ জুলাই) অনষ্ঠিত হবে মোস্তাফিজের বৌভাতের আনুষ্ঠানিকতা। এরই মধ্যে তার বাড়িতে সাজ সাজ রব পড়ে গেছে। আত্মীয়-স্বজন-শুভাকাঙ্ক্ষীদের মধ্যে বইছে আনন্দের বন্যা।
মোস্তাফিজের বড় ভাই মাহফুজার রহমান মিঠু জানিয়েছেন, কম বেশি হাজার দু’য়েক অতিথি তো থাকবেনই।
জাতীয় দলের সব খেলোয়াড় নিমন্ত্রিত হবেন জানিয়ে তিনি বলেন, সব আয়োজন হবে গ্রামের বাড়িতে। সব আত্মীয়-স্বজনরাই থাকবেন অনুষ্ঠানে। গ্রামীণ আচার-অনুষ্ঠানেই হবে মোস্তাফিজের বৌভাত।
নববধূ সামিয়া পারভিন শিমু ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে মনোবিজ্ঞান বিভাগে অনার্স প্রথম বর্ষের ছাত্রী। তার বাবা মো. রওনাকুল ইসলাম পরিবারের অন্য সদস্যদের নিয়ে থাকেন গ্রামের বাড়ি সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলার জগন্নাথপুর গ্রামে। পাঁচ রাখ ১ টাকা দেনমোহরে গত ২২ মার্চ বিয়ে হয়েছিল তাদের।
মুস্তাফিজের স্বপ্নের রাণী তার মামাতো বোন শিমু ২০১৮ সালে দেবহাটার সখিপুর খান বাহাদুর আহসানউল্লাহ কলেজ থেকে এ প্লাস পেয়ে এইচএসসি পাস করেন। এর আগে ২০১৬ সালে নলতা হাইস্কুল থেকে তিনি গোল্ডেন এ প্লাস পেয়ে পাস করেন এসএসসি।

Top