বড়াইগ্রামে পাওনা টাকা চাওয়ায় হাতুড়ি পিটিয়ে জখম

SAVE_20190627_011748.jpg

নাটোর প্রতিনিধি:
নাটোরের বড়াইগ্রামে পাওনা ৩০০ টাকা চাওয়ায় হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে জখম করেছে ইসমাইল মিয়াজী (৪৫) নামের এক গরীব কৃষককে। আহত ইসমাইল মিয়াজী উপজেলার বনপাড়া গুনাইহাটি গ্রামের মৌসুমী নার্সারীর পাশের আব্দুস সাত্তার মিয়াজীর ছেলে।
সোমবার দুপুর ২টার দিকে ইসমাইল মিয়াজী তার পাওনা পাওয়ার ট্রিলার চালানোর ১৫০ টাকা ও দুধ বিক্রির ১৫০ টাকা মোট ৩০০ টাকা একই এলাকার হাসেম ড্রাইভারের ছেলে মজিবরের কাছে চাইতে গেলে টাকা না দেয়ার অযুহাতে কথা কাটাকাটি হয়। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে মজিবর বাজার থেকে তার বন্ধু যুবরাজের ছেলে মিন্টু ও মাঝগ্রামের সুলতানের ছেলে জাহাঙ্গীরকে ডেকে আনে এবং ইসমাইল মিয়াজীকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে হাতুড়ি, লোহার পাইপ সহ বিভিন্ন সরঞ্জাম দিয়ে অমানবিক ভাবে পিঠিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় তার আতœচিৎকারে এলাকাবাসী ছুটে এসে উদ্ধার করে ও তাৎক্ষনাত বড়াইগ্রাম সদর হানপাতালে প্রেরণ করে।
পরে ইসমাইল মিয়াজীর স্ত্রী আসমা বেগম বাদী হয়ে হাসেম ড্রাইভারের ছেলে মজিবর, যুবরাজের ছেলে মিন্টু ও মাঝগ্রামের সুলতানের ছেলে জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে হাতুড়ি, লোহার পাইপ সহ বিভিন্ন জিনিস দিয়ে পেটানোর অভিযোগে থানায় একটি ডায়েরী করেন।
বড়াইগ্রাম থানা ওসি দিলীপ কুমার দাস বলেন, ঘটনার সম্মন্ধে আমাদের কাছে একটি ডায়েরীভুক্ত করা হয়েছে। এ ব্যাপারে আমরা তদন্ত করছি তদন্ত সাপেক্ষে আসামীদের শাস্তির ব্যাবস্থা করা হবে।

Top