সরিষাবাড়ীতে মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্চিতের প্রতিবাদে প্রতিবাদ সভা

muktijodda.jpg

মাসুদুর রহমান–

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বীর মুক্তিযোদ্ধাকে লাঞ্চিতের ঘটনায় গতকাল শুক্রবার সাড়ে ১১ টায় পিংনা ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কার্যালয়ে’র উদ্দ্যেগে অর্ধশতাধিক মুক্তিযোদ্ধারা প্রতিবাদ সভা করেছেন।
   পিংনা ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কার্যালয় সুত্রে জানা গেছে,উপজেলার পিংনা দৈনিক বাজারটি পিংনা ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কার্যালয়ের নামে ইজারা নিয়ে বাজারটি সংরক্ষন করে আসছিল। ইতিমধ্যে বাজারের চার শতাংশ সরকারী খাস জমি পিংনা গ্রামের আমান উল্লাহ’র ছেলে ইকবাল হোসেন তানছেন অবৈধভাবে দখল করে ভাড়া দেয়ার জন্য পাকা দোকান নির্মান করছেন।এ বিষয়ে গত বৃহস্পতিবার সন্ধা ৬ টা’র দিকে বীর মুক্তিযোদ্ধা কাশেম আলী ও মকবুল হোসেন সরকারী হাটবাজারের জায়গায় ভবন নির্মানে বাধা দেন।এ প্রেক্ষিতে বীর মুক্তিযোদ্ধা কাশেম আলী ও মকবুল হোসেন কে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে লাঞ্চিত করে ইকবাল হোসেন তানছেন।এ নিয়ে মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাষী সচেতন মহলের মাঝে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।
     প্রতিবাদ সভায় পিংনা ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের ডেপুটি কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা কাশেম আলী সভাপতিত্ব করেন।এতে বক্তব্য রাখেন,বীর প্রতিক বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাকিম,বীর বীরমুক্তিযোদ্ধা ইন্তাজ আলী,মকবুল হোসেন,আবুল কাশেম,হাসান আলী,মজনু মিয়া,বীরমুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক পিংনা ইউপি চেয়ারম্যান এ কে এম ছানোয়ার হোসেন ছানা প্রমুখ।
    প্রতিবাদ সভায় বক্তারা বলেন,পিংনা দৈনিক বাজারের সরকারী ভ’মি হইতে আগামী সাত দিনের মধ্যে অবৈধ ভাবে উত্তোলিত পাকা ঘর সরিয়ে নেয়ার জন্য ইকবাল হোসেন তানছেন বলে দেওয়া হয়েছে।অন্যথায় সকল মুক্তিযোদ্ধারা জনস্বার্থে হাট হাজারের জমি উদ্ধারের জন্য প্রশাসনের মাধ্যমে উচ্ছেদ করবেন বলে প্রতিবাদ সভায় তাদের বক্তব্য উল্লেখ করেন।

                     

Top