ছাত্রলীগের পূর্নাঙ্গ কমিটির উপর ক্ষোভ প্রকাশ করেছে জাবি ছাত্র।

received_290153861872741.jpeg

জাবি প্রতিনিধি ;
দুই বছর মেয়াদী কমিটির প্রায় ১১ মাস পেরিয়ে যাওয়ার পর পূর্ণাঙ্গ হয়েছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটি।
সোমবার বিকাল চারটার দিকে ৩০১ সদস্য বিশিষ্ট এই কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রব্বানী এই কমিটির অনুমোদন দেন। _কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের পূর্নাঙ্গ কমিটিতে বরাবরের মতই অবহেলিত হলো জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের অন্যান্য পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ। আসলে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কমিটি পূর্নাঙ্গ হয়নি, হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের পূর্নাঙ্গ কমিটি। বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৩০১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটিতে স্থান পাওয়া অধিকাংশই ঢাবি ছাত্র। ঢাবি ছাত্ররাই কি বঙ্গবন্ধুর অাদর্শ ধারন করে? তারাই কি ত্যাগী কর্মী? আর অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পলিটিকালরা কি বালছাল?
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অনেক ছাত্ররাই আছেন যারা দীর্ঘদীন ছাত্রলীগে জড়িত থেকে, নিজেদের মেধা,পরিশ্রম দিয়েও কেন্দ্রীয় কমিটিতে স্থান পান নাই। একটা কথা সকলেরই মাথায় রাখা উচিত বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সুনাম অক্ষুন্ন রাখতে হলে অবশ্যই বাংলাদেশের সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করতে হবে। ছাত্রলীগের এই পূর্নাঙ্গ কমিটি মোটেও সন্তোষজনক নয়। ছাত্রলীগের শীর্ষ নেতাদের কাছে এরুপ কমিটি কখনো আশা করিনি।

Top