দ্বিতীয় বিয়ের অনুমতি না দেয়ায় স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যা

57456889_329583071081327_8433554983076495360_n.jpg

স্টাফ রিপোর্টার,রংপুর:
দ্বিতীয় বিয়ের অনুমতির কাগজে স্বাক্ষর না দেওয়ায় স্ত্রী গোলাপী বেগমকে (২৮) শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামী নাদের আলী নেন্দুর বিরুদ্ধে। গতকাল রোববার বিকেলে রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার হারাগাছ চরচতুরা গ্রামে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে ঘাতক স্বামী নাদের আলী নেন্দু পলাতক আছে। এদিকে হত্যাকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের হারাগাছ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি, তদন্ত) রাজিফুজ্জামান বসুনিয়া রাজিব জানান, প্রায় ১২ বছর আগে গোলাপী বেগমের সঙ্গে চরচতুরা গ্রামের নাদের আলী ওরফে নেন্দুর (৪০) বিয়ে হয়। কিছুদিন ধরে নাদের আলী দ্বিতীয় বিয়ে করার জন্য অনুমতি চেয়ে গোলাপীর কাছে স্বাক্ষর চেয়ে আসছিলেন। এ নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বিবাদও হয়। গতকাল রোববার বিকেলে আবারও স্ত্রীর কাছে দ্বিতীয় বিয়ের জন্য অনুমতি চেয়ে কাগজে স্বাক্ষর চাইলে অসম্মতি জানান গোলাপী। এতে স্বামী নাদের আলী ক্ষিপ্ত হয়ে গোলাপীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেন। পরে স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে গোলাপীর মরদেহ উদ্ধারসহ হত্যাকাণ্ডে জড়িত সন্দেহে দুজনকে আটক করে। তবে তদন্তের স্বার্থে আটক দুজনের নাম প্রকাশ করেননি ওসি।
ওসি (তদন্ত) আরও বলেন, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের সহকারী পুলিশ কমিশনার (মাহিগঞ্জ জোন) ফারুক আহমেদ বলেন, গোলাপী বেগমের গলায় দাগ রয়েছে। প্রাথমিকভাবে তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Top