ধ্বংস হচ্ছে যুব সমাজ, আশুলিয়ার গৌরীপুরে ক্রিকেট জুয়া।

received_2360365170859197.jpeg

আব্দুল জলিল মিয়া।
আশুলিয়া প্রতিনিধি:

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ আই,পি,এল এ দেশের ক্রিকেটে যথেষ্ট প্রভাব ফেলেছে। তার ফলে বিশ্ব ক্রিকেটে টাইগাররা যথেষ্ট দাপটে আছে। কিন্তুু আশুলিয়া থানা গৌরীপুর এর প্রভাব ক্রিকেটারদের উপরে না পড়ে তার কু-প্রভাব প্রভাবিত হয়ে আই,পি,এল চার ছক্কা আর উইকেট জুয়ায় নিঃস্ব হচ্ছে ব্যবসায়ী আর ধ্বংস হচ্ছে যুব সমাজ, লাভবান হচ্ছেন দাদন ব্যবসায়ীরা।

আই,পি,এল নয় আশুলিয়া গৌরীপুরে এখন সব ধরনের ক্রিকেট মানেই জুয়া। আর ক্রিকেট জুয়ারীদের দৌড় ঝাঁপ দেখলে মনে হয় গৌরীপুর যেন বিশ্বের সবচেয়ে বড় জুয়ার আসর। দলের উপর থেকে শুরু করে বল,রান, উইকেট এবং এমন কি খেলোয়াড়দের উপরেও চলে জুয়া। প্রতিদিন দল বুঝে লক্ষ থেকে কোটি টাকা পর্যন্ত বাজি হয়ে থাকে।

শহর থেকে প্রত্যন্ত অঞ্চলে সব অলিগলির চায়ের দোকান, বড় ছোট ক্লাব,ব্যবসায়ীদের গদি ঘরে জুয়ার প্রধান আসর। এমন কি বাসায় বসে মোবাইলে কন্টাক্টের মাধ্যমে ভ্রাম্যমাণ জুয়ার আসর তো আছেই।

দৃশ্যমাণ জুয়া নয় বলে প্রশাসনিক ঝামেলা পোহাতে হয় না। পিতা-পুত্র বড় ছোট সবাই এক সাথে বসে মোবাইল মেসেজের মাধ্যমের প্রতিপক্ষেরে সাথে বাজি বিনিময় হয় এবং বিকাশেও টাকা লেনদেন করে।

সরেজমিন ঘুরে দেখা ও শুনা যায়, আই পি এল চলাকালীন সময় বড় বড় ব্যবসায়ীদের গদি ঘর, চায়ের দোকান, ছোট বড় ক্লাবে টিভির সামনে বসা ক্রিকেটপ্রেমি জুয়াড়ীরা অপলক দৃষ্টিতে নিস্তব্ধ হয়ে তাকিয়ে আছে। আর মাঝে মাঝে বাজিতে হারা জুয়াড়ীদের মুখ থেকে ভেসে আসে ইস উহু শব্দ, দুর থেকে কেউ শুনলে মনে হবে এখানে কোন বড় ধরনের অপারেশন হচ্ছে রোগী ব্যথায় এমন আওয়াজ করছে। এ ধরনের জুয়ায় নিয়মিত অংশ গ্রহণকারীরা হচ্ছে সরকারী কর্মকর্তা, কর্মচারী, ব্যবসায়ী ও যুব সমাজ।

প্রত্যক্ষদশীরা জানায়, ক্রিকেট নিয়ে এ কেমন জুয়া শুরু হয়েছে বলে, রানে, উইকেটে আবার দলের সাথে তো আছেই, খেলোয়াড় ও টসের উপর ও লক্ষ টাকার বাজি হচ্ছে।

Top