কমলগঞ্জে ধলাই নদী থেকে বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

IMG_20190324_183154.jpg

নির্মল এস পলাশ,কমলগঞ্জ প্রতিনিধি :

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে ধলাই নদী থেকে ড্রেজার মেশিন দিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ, নদী সুরক্ষা ও পরিবেশ বিপর্যয়ের হাত থেকে রক্ষার দাবিতে মানববন্ধন করেছে গ্রামবাসী। রোববার বেলা সাড়ে ১১টায় ধর্মপুর-রামচন্দ্রপুর গ্রামের নদীপাড়ের মানুষ মৃত্তিঙ্গা চা বাগানের ব্রীজ সংলগ্ন এলাকায় এই মানববন্ধন করেন।

মানববন্ধনে লিখিত বক্তব্যে গ্রামের বাসিন্দা মাওলানা লুৎফুর রহমান জাকারিয়া বলেন, ধর্মপুর ও রামচন্দ্রপুর গ্রামের মধ্যদিয়ে প্রবাহিত ধলাই নদী তীরে বসবাসরত নদী পাড়ের লোকজন আতঙ্কে দিনযাপন করছি। এখানে একটি ইজারাদারের মাধ্যমে স্থানীয় প্রভাবশালী মহল দীর্ঘদিন যাবত ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করায় আমাদের বিশ একর ভুমি নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। তিনি আরও বলেন, নদীর ঐ স্থান থেকে ৩০-৪০ ফুট গভীর করে বালু উত্তোলন করার কারণে নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধ ভেঙ্গে বর্তমানে নদী আমাদের বসতভিটার কাছে চলে আসছে। এখনও ঘরের পাশেই মৃত্তিঙ্গা-ভৈরবগঞ্জ সড়কের ধলাই সেতুর প্রায় একশ’ ফুট অদুরে ড্রেজার মেশিনে বালু উত্তোলন চলছে। বালু উত্তোলনের এই প্রক্রিয়া অব্যাহত থাকায় গ্রামের দুরুদ মিয়া, সামছুল ইসলাম, ফয়সল আহমদ, আলমাছ মিয়া, আইন উদ্দীন, আনোয়ার মিয়া, আব্দুর রহমান সহ প্রায় ২০টি পরিবার হুমকির মুখে পড়েছে।

দুরুদ মিয়া, সামছুল ইসলামসহ স্থানীয় এলাকাবাসী জানান, এসব বিষয়ে ইতিপূর্বে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক, সিলেট বিভাগীয় কমিশনার, ভুমি কর্মকর্তাসহ সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ দেয়া হলেও কোন কাজ হয়নি। তাই এলাকাবাসী নিজেদের অস্থিত্ব রক্ষায় বাধ্য হয়েই মানববন্ধনের মাধ্যমে নদী সুরক্ষা ও পরিবেশ বিপর্যয় রোধে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করছে।

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আশেকুল হক বলেন, বিষয়টি স্থানীয় তহশীলদারকে সরেজমিন তদন্ত করে প্রতিবেদন দেয়ার জন্য বলা হয়েছে। তদন্তক্রমে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Top