শিবগঞ্জে তর্ত্তীপুরে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের গঙ্গাস্নান মেলা অনুষ্ঠিত

51801895_316787642307082_7858055414389145600_n.png

চাঁপাই জেলা প্রতিনিধিঃ
চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ পৌর এলাকার তর্ত্তিপুর মহাশ্মশানে জাহ্নবীমনির আশ্রম চত্তরে মাকরী সপ্তমী মহাপূর্ণ স্নান উপলক্ষ্যে হিন্দু ধর্মাম্মবলীদের ৩ দিন ব্যাপি মিলন মেলা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মঙ্গলবার ভোর থেকে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে তর্ত্তিপুর মহাশ্মান এলাকায় গণ জমায়েত শুরু হয়েছে। এখানে সকাল থেকে লক্ষাধিক সনাতন ধর্ম্বাম্বলীরা তাদের পাপ মোচনের আশায় স্নান শেষে নদীতীরে প্রার্থনা, গীতাপাঠ এবং কীর্ত্তন শোনার জন্য ধর্ম সভায় ভীড় জমিয়েছেন। শেষে দই চিড়া ভোজ খেয়ে গঙ্গার জল সাথে নিয়ে নিজ নিজ বাড়ীতে ফিরে যান। হিন্দুদের এ গনজমায়েত কে উদ্দেশ্য করে তক্তিপুর ঘাট এলাকায় জমে উঠেছে মেলা। মেলা চলবে ৩ দিন। এই গঙ্গাস্নান উপলক্ষ্যে তর্ত্তিপুর ঘাট এলাকায় অনুষ্ঠিত মেলায় হিন্দুদের শাখা, সিঁদুর, খাড়া, শঙ্ক, বিভিন্ন দেবতার ছবি সহ পোষ্টার, বই, গীতা, পুঞ্জিকা, কাঠের তৈরী প্রয়োজনীয় আসবাব পত্র, গৃহস্থালী কাজে ব্যবহার যোগ্য বিভিন্ন জিনিসপত্র, মিষ্টির দোকান ও হোটেল, কসমেটিক্স দোকান সহ হরেক রকম দোকান বসে থাকে। মেলা উপলক্ষ্যে স্থানীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যাপক নিরাপর্ত্তা লক্ষ্য করা গেছে।
গঙ্গাস্নানে আগত শ্রী মটর কুমার সাহা জানান, অন্যান্যবার এখানে জলের সমস্যা না থাকলেও এবছর তাদের স্নানের প্রধান উপকরন নদীর জল সমস্যা এ জন্য কিছুটা তাদের বিরম্বনায় পড়তে হচ্ছে। একই সুরে কথা বলেন আসা শ্রী রাজু কুমার।
এ ব্যাপারে তর্ত্তীপুর গঙ্গাস্নান মেলা কমিটির সাধারন সম্পাদক কমোল ত্রিবেদী জানান, এ বছর ভক্তদের প্রচুর সমাগম হয়েছে। তাদের প্রস্তুতিও ভাল। আর স্থানীয় প্রশাসন তাদের সর্বাতক সহায়তা করছে। তবে এ বছর নদীতে জল সংকটের জন্য কিছুটা তাদের সমস্যা হচ্ছে বলে জানান তিনি। এ জন্য আগামী গঙ্গাস্নানের আগেই এ সমস্যার সমাধোনের প্রত্যাশা করেন তিনি।

Top