১১ বছর পরে ‘এগারো’তে স্থান, ফলাফল শূন্য

নিউজ নিউজ

ভিশন ৭১

প্রকাশিত: ৩:০৪ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ১৪, ২০২০

মুহা. ইকবাল আজাদ, ক্রীড়া প্রতিবেদক। 


প্রায় ১১ বছর পর টেস্ট দলের এগারো জনের স্কোয়াডে স্থান পেয়েছেন পাকিস্তানের ব্যাটসম্যান ফাওয়াদ আলম। দীর্ঘ দিন পরে দলে জায়গা পেয়েও ব্যাট হাতে কোন সুবিধা করতে পারেননি। বরং শূন্য রানের লজ্জার রেকর্ড গড়ে মাঠ ছেড়েছেন। বিনা রানেই প্রথম ইনিংস থেকে বিদায় নিয়েছেন। ৮৮ ম্যাচ পরে দলে ফিরে শূন্য রান করে বিশ্ব ক্রিকেটে অনন্য এক রেকর্ড গড়েছেন। বলা যায়, ২০০৯ সালের পরে দলে জায়গা না পাওয়ার কারনটাই যেন মাঠে ফুটিয়ে তুলেছেন ফাওয়াদ আলম।

তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে গত মাসেই ইংল্যান্ডে পাড়ি জমায় পাকিস্তান দল। তাতে নিজেদের মধ্যে ভাগাভাগি অনুশীলন ম্যাচ খেলেছে মিসবাহবাহিনী। অনুশীলনের সেই ফলটা কিছুটা হলেও প্রতিফলন ঘটিয়েছে প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে। কিন্তু দ্বিতীয় ইনিংসে যাচ্ছেতাই ব্যাটিং করে অনেকটা খেই হারিয়ে ফেলে আজহার আলীর সেরা এগারো জন। নিজেদের ব্যাটিং ব্যর্থতায় ইংল্যান্ড যেন মুখ থেকে ছিনিয়ে নিয়েছে পাকিস্তানের জয়। তাতেই দলে এসেছে পরিবর্তন, এসেছেন ফাওয়াদ আলম। এবার শক্ত ব্যাটিং লাইনআপ হবে নিশ্চয়ই। হলো কই? ফাওয়াদ আলম এলেন, গেলেন। এত বছর যেন বেকার খাটলেন!

পাকিস্তানের হয়ে যে জাতীয় দলে খুব একটা খেলেছেন তা-ও বলা যাবে না। ৩৪ বছর বয়সে জাতীয় দলের হয়ে মাত্র ৪টি (আজকেরটি সহ) টেস্ট খেলছেন ফাওয়াদ। নিজের চতুর্থ টেস্টে খেলেছেনও সমানসংখ্যক অর্থাৎ চারটি বল। শুরুতে ব্যাটিংয়ে নেমে যে অদ্ভুত ভঙ্গিতে দাঁড়িয়েছেন এই বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান, তা চোখে পড়ার মতো। বোলারকে ভড়কে দিতেই সাধারণত ব্যাটসম্যানরা এমন উদ্ভট ভঙ্গিতে ব্যাটিং করেন। কিন্তু বলের বাউন্স আর গতির সাথে নিজেকে সমানতালে নড়চড় না করতে পারলে ব্যাটসম্যানরা উল্টো বেকায়দায় পড়েন। ফাওয়াদ আলমও বেকায়দায় পড়েছেন। ক্রিস ওকসকে ভড়কে দিতে গিয়ে নিজেই ভড়কে গেছেন। এলবিডব্লুর ফাঁদে পড়ে মাঠ ছেড়েছেন।

দীর্ঘদিন পরে ফাওয়াদের প্রত্যাবর্তনে অনেকেই তার ব্যাটিং দেখার আশায় বসে ছিলেন। পুনরায় ব্যাটিং ব্যর্থতার দিনে ফাওয়াদ আলম যে এমন লজ্জার রেকর্ড গড়বেন, ব্যর্থতার বহিঃপ্রকাশ করবেন তা হয়তো পাকিস্তানের ক্রিকেট প্রেমীরাও ভাবতে পারেননি। প্রথম ইনিংসে ‘রেকর্ড ডাক’ এর জন্য নিশ্চয়ই স্মরণীয় হয়ে থাকবেন এই বাঁহাতি। দেখা যাক, দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে বিশেষ কিছু করে ভালো রেকর্ডে স্মরণীয় হতে পারেন কি-না!