ঢাকা১৮ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

হৃষিতা তিন্নি’র অণুগল্প ‘সুখী মানুষ’

প্রতিবেদক
নিউজ ভিশন

জানুয়ারি ৩০, ২০২১ ১:৫২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

——————————————–

পিয়া:হিয়া তুই কি অদ্ভুত মেয়ে।
দুঃখগুলো আড়াল করে কীভাবে এত হাঁসিস?
মানুষকেও হাঁসিতে মাতিয়ে রাখিস।
কীভাবে সম্ভব এমন কাজগুলো?
হিয়া:হাহা।
তুই যেরকম ভাবে হাঁসিয়ে-মাতিয়ে রাখিস,ঠিক সেরকম।
পিয়া:আমার তো কোনো দুঃখ নেই,তাহলে আমার সাথে তুলনা দিচ্ছিস কেনো?
হিয়া:হাহা হাহা,আবারো হাসালি।
হিয়া আর পিয়া দুজনে কিছুক্ষন নিরব থাকে।
হিয়া একটু হাফ ছেড়ে বলা শুরু করে:জানিস,প্রতিটা মানুষেরই কিছু না কিছু কষ্ট থাকে।কেও কেও আছে যারা যারা কষ্ট পেতে-পেতে এতটাই সীমার বাহিরে চলে যায়,তাদের বহিঃপ্রকাশ হয় নিরব-নিস্তব্দ,মানুষ এদের বলে গম্ভীর।
কেও কেও আছে যারা কষ্ট পেতে এতটাই তীব্র হন যে তারা সাধারন মানুষের মত কথা-বার্তা বলেন ঠিক কিন্তু চোখ দিয়ে পানি জড়ে না।
মানুষ এদের “পাথর” বলে।
আর কেও কেও আছে যারা দুঃখ’টাকে মাটির সাথে ঢাকা দিয়ে হাঁসি’টাকে তার জীবনসঙ্গী করে নেয়…যেমন ধর তুই।
পিয়া:সবই ঠিক বললি, শুধু ওই জায়গায়’টায় ভুল বললি।
হিয়া:কোন জায়গা?
পিয়া:তুই ও আমি।
হিয়া :হয়তোবা।
কিন্তু আমি যে নিজেকে অনেক বড় সুখী মানুষ ভাবি।সুখী মানুষের কী কোনো দুঃখ থাকে?
পিয়া:সব সুখের পিছনেই সর্বপ্রথম দুঃখের হাত থাকে।আমিও তো সুখী মানুষ!তোহ!
হিয়া:তুই কীভাবে সুখী?যে তার মাকে শৈশবেই হারায়,যে পৃথিবীর উত্তর-দক্ষিন ভালো করে চিনতে পারে নি,বাবা কর্মজীবি হওয়ায় বাবার স্নেহের পরশটুকু পায় নি,যে বৌদির কাছ থেকে পেয়েছে একরাশ ধিক্কার আর অপবাদ সে কীভাবে সুখী হয়?
পিয়া:আমারও তো একি প্রশ্ন তুই কীভাবে সুখী মানুষ?
যার বাবা বেঁচে থেকেও বেঁচে নেই।
যে ছোটবেলা থেকে চোখের সামনে দেখে এসেছে মা-বাবার ঝগড়া,যার একমাত্র ভাইটা বাক-শ্রবন প্রতিবন্ধী,যে
যার বাবা মাঝরাতে ঘুমের মধ্যে গলা টিপে হত্যা করতে চায় একমাত্র মেয়েকে তাও আবার কোনো কারন ছাড়াই….সে কীভাবে সুখী মানুষ হয়?
হিয়া:এই প্রশ্নের উত্তর আমার কাছে বর্তমানে নেই।তুই বল?
পিয়া:আমার কাছেও নেই রে।
____________________________________________
ঠিক হিয়া আর পিয়ার মত কিছু-কিছু মানুষ হেরে যায় তার প্রিয় মানুষের কঠিন-কঠিন প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে।
যেসব প্রশ্নের উত্তরগুলো কোনো বড় পাঠ্য পুস্তকেও লিখা নেই।
হিয়া আর পিয়া চরিত্র দুইটা শুধু মাত্র গল্পতেই সীমাবদ্ধ নয়।
এই দুইটা মানুষ জলজ্যান্ত প্রমান।

সম্পর্কিত পোস্ট