স্বাচিপ নেতা ডা. লিটনের ভিডিও ভাইরাল; স্বাস্থ্য ডিজির হস্তক্ষেপ চান

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ৭:৫২ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২০, ২০২০

জে. জাহেদ,
বিশেষ প্রতিবেদক:

ঢাকা শিশু হাসপাতালে নার্স নিয়োগ পরীক্ষায় এক পরীক্ষার্থীকে প্রশ্নের উত্তর বলে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে হাসপাতালের ডা. জহিরুল ইসলাম লিটনের বিরুদ্ধে।

গতকাল শিশু হাসপাতালের পুরাতন ভবনের করিডোর-২ তে এ ঘটনা ঘটে।

এক পরীক্ষার্থীর পাশে অনেকক্ষণ দাঁড়িয়ে কিছু বলে দিচ্ছেন এমন একটি ভিডিও ইনকিলাবের হাতে রয়েছে। তবে এ বিষয়ে জানার জন্য ডা. জহিরুল ইসলাম লিটনের মোবাইলে একাধিকবার ফোন করলেও তার মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।

ডা. লিটন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) শিশু হাসপাতাল শাখার সাধারণ সম্পাদক। এখানকার চিকিৎসকদের অভিযোগ, স্বাচিপের ক্ষমতার অপব্যবহার করে হাসপাতালের সবার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করেন। কোনো কাজ না করেও বেতন নেন। এছাড়া দীর্ঘদিন সাভারের একটি বেসরকারি হাসপাতালে চাকরি করছেন। যা সম্পূর্ণ নিয়ম বহির্ভূত।

জানা গেছে, গতকাল সকাল ১০টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত শিশু হাসপাতালের নার্স নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় পরীক্ষার হল করিডোর-২ তে এক পরীক্ষার্থীকে প্রশ্ন বলে দিচ্ছিলেন এমন একটি ভিডিও ফাঁস হয়। ভিডিওতে দেখা গেছে, ওই রুমের দায়িত্বে থাকা ডা. রেজওয়ানা রুমা সামনে চেয়ারে বসে আছেন। ডা. লিটন বোরকা পড়া এক পরীক্ষার্থীর পাশে দাঁড়িয়ে নিচু হয়ে কিছু একটা বলছেন আর ওই পরীক্ষার্থী বৃত্ত ভরাট করছেন।

পরীক্ষার হলের দায়িত্বে থাকা ডা. রেজওয়ানা রুমা বলেন, অন্য কাজে ব্যস্ত থাকায় বলে দেয়ার বিষয়টি খেয়াল করিনি। তবে পরে বিষয়টি জানতে পেরে পরিচালককে জানিয়েছি। ডা. জহিরুল ইসলাম লিটনের পরীক্ষার হলে দায়িত্ব ছিল কিনা জানতে চাইলে ডা. রেজওয়ানা রুমা বলেন, ডা. লিটনের পরীক্ষার হলে দায়িত্ব ছিল না।

সুত্র :ইনকিলাব, দেশ রুপান্তর