সাতকানিয়ায় নারীকে অপহরণ করে মুক্তিপন আদায়ের চেষ্টা, আটক ৩

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ৫:২০ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০১৯

মোঃ নাজিম উদ্দিন, দক্ষিণ চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:
দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় কৌশলে আফরোজা সাদিয়া মুক্তা (২২) নামের এক নারীকে অপহরণের পর মুক্তিপণ আদায়ের চেষ্টা করেছে অপহরণকারীরা। ঘটনার এক ঘন্টা পর ওই নারীকে স্থানীয়দের সহযোগীতায় সাতকানিয়া থানা পুলিশ মঙ্গলবার রাতে ছদাহার ছহিরপাড়া থেকে উদ্ধার করেছে। এ সময় অপহরণকারী দলের সদস্য উপজেলার ছদাহা পশ্চিম আফজলনগর এলাকার নুর মোহাম্মদের ছেলে মো. আব্দুল্লাহ
(২১), উত্তর ছদাহার আমির হামজার বাড়ির মৃত তৈয়ব আলীর ছেলে মোঃ তারেক আজাদ (১৯) ও একই ইউনিয়নের নওরগা পাড়ার আবু তাহেরের ছেলে হারুনুর রশিদ (২০) কে আটক করে। এব্যাপারে অপহৃত নারী বাদী হয়ে ৪ জনকে আসামি করে সাতকানিয়া
থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন।
অপহৃত নারীর মা হোসনে আরা জানান, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আমার মেয়ে মুক্তা কেরানীহাটে গিয়ে কিছু কেনাকাটা করে রাতে বাড়ী ফেরার জন্য বান্দরবান রাস্তার মাথা এলাকায় সিএনজিতে উঠতে গেলে কয়েক জন ছেলে ভুল তথ্য দিয়ে তাকে গাড়িতে তুলে অপহরণ করে ছদাহার দিকে নিয়ে যায়। পরে আমার মেয়ের মুঠোফোন থেকে অপহারণকারীরা বাড়িতে কল করে ১০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে।
মুক্তিপণের টাকা দিলে অপহরণকারীরা আমার মেয়েকে ছেড়ে দেবে বলে জানায়। বিষয়টি থানা পুলিশকে জানানো হয়। ঘটনার কিছুক্ষণ পর ছদাহার পাহাড়ী এলাকার দিকে আমার মেয়েকে সিএনজি করে নিয়ে যাওয়ার সময় গাড়ি থেকে সেই চিৎকার দিলে ছহিরপাড়া এলাকায় স্থানীয় লোকজন গাড়িটি ধরে রাখে। পরে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ এসে আমার মেয়েকে উদ্ধার করে অপহরণকারীদের আটক করে থানায় নিয়ে যায়।
সাতকানিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সফিউল কবীর বলেন, রাতে ঘটনার খবর পেয়ে ছদাহার ছহিরপাড়া এলাকা থেকে স্থানীয় লোকজনের সহযোগীতায় ওই নারীকে উদ্ধার করি। এসময় ঘটনায় জড়িত ৩ জনকে আটক করা হয়। আটককৃতরা জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে। এব্যাপারে ভিকটিম বাদী হয়ে ৪ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। আসামিদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।