সর্বোচ্চ সুরক্ষায় পালিত হবে হজ্জ, সৌদিতে ঈদ উল আযহা ৩১ জুলাই

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ২:৪৬ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ২২, ২০২০

আব্দুল মুনঈম :

Advertisement

সৌদি সুপ্রিম কোর্ট সোমবার বলেছে যে জিলহজ্জ মাস গননা শুরু হবে বুধবার, ২২ জুলাই এবং এ হিশেবে আরাফাত দিবস (৯ জিলহজ্জ) তথা ৩০ জুলাই বৃহস্পতিবার পতিত হবে। সেই সুত্র ধরেই ঈদ ঊল আজহা শুক্রবার, ৩১ জুলাই শুরু হবে।

তবে এবছর মহামারীর কারনে হজ পালনের জন্য নির্বাচিত হাজিরা রবিবার থেকে সাত দিনের কোয়ারানটাইন শুরু করেছে, বলে জানিয়েছে হজ ও ওমরাহ বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

এই পদক্ষেপ হজ চলাকালীন হাজিদের সুরক্ষা নিশ্চিত করার জন্য নেওয়া কয়েকটি ধারাবাহিক সুরক্ষার একটি অংশ, যা চলমান করোনভাইরাস রোগ মহামারীর মধ্যে সংঘটিত হচ্ছে। সৌদি কর্তৃপক্ষ হজ্জযাত্রীদের নিরাপত্তা ও সুরক্ষা নিশ্চিত করতে সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।

মক্কা অঞ্চলের পুলিশ ডিরেক্টর মেজর জেনারেল জেনারেল আদিল বিন সাদ আল-ওতাবি বলেছেন, পবিত্র শহরে অবৈধ যাত্রীদের প্রবেশে বাধা দেওয়ার জন্য নিরাপত্তা ও তল্লাশি চৌকিগুলোতে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে, তিনি বলেন, মক্কার দিকে যাওয়ার সমস্ত চৌকিতে পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

পুলিশ প্রধান জানান, বিদ্যমান শহরগুলি ছাড়াও মক্কা ও এর আশেপাশে ফাঁকা রাস্তাগুলোতে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে অসাধু কাউকে দেখলেই তাকে ফেরৎ পাঠানো হবে।

হজ টহল সুরক্ষার সহকারী কমান্ডার মেজর জেনারেল আবদুল আজিজ আল-মাসাদের মতে, এখনও পর্যন্ত একটিও জাল অভিযানের খবর পাওয়া যায়নি।

আল-মাসাদ বলেছেন: “কেবলমাত্র কেন্দ্রীয় অঞ্চল এবং মক্কার পবিত্র স্থানগুলিতে প্রবেশের অনুমতি প্রাপ্ত ব্যক্তিদের প্রবেশের অনুমতি রয়েছে। অন্যথায় সীমালঙ্ঘনকারীরা কঠোর শাস্তির মুখোমুখি হবে। ”

তিনি হজ মরসুমে সকলের নিরাপত্তার জন্য হজযাত্রী ও অনাণ্যদের সাবধানতার সাথে চলাফেরা করার আহ্বান জানান।

হজের ট্র্যাফিক বিষয়ক সহকারী কমান্ডার মেজর জেনারেল মোহাম্মদ বিন আবদুল্লাহ আল-বাসামি নিশ্চিত করে বলেছেন যে যাতে ট্র্যাফিক ব্যাহত না কোন জানজটের স্মৃষ্টি না হয় সে জন্য কর্তৃপক্ষ কঠোর পরিশ্রম করছে।

বিনা অনুমতিতে হজযাত্রীদের পরিবহন করলে হজ আইন লঙ্ঘন করার জন্য সর্বনিম্ন ১০,০০০ থেকে সর্বোচ্চ ৫০,০০০ সৌদি রিয়াল জরিমানা এবং সেই সাথে ১৫ দিন থেকে ছয় মাসের জেল হতে পারে জানিয়েছে হজ্জ কর্তৃপক্ষ। আরো এই বলে সাবধান করা হয়েছে যে যদি কেউ বহিরাগতদের মধ্যে থেকে কেউ দন্ডিত হয় তবে তাকে বহিষ্কার করা হবে এবং কিছু সময়ের জন্য পুনরায় প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হবে।

হজ করার পরে হজ্জযাত্রীদের দ্বিতীয় কোয়ারানটাইন সময় কাটাতে হবে।

সংবাদ সুত্র এ এফ পি ও গল্ফ নিউজ সৌদি