সনাতনধর্ম ত্যাগ করে যুবকের ইসলাম ধর্ম গ্রহণ।

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ১০:৪৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০২১

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি!!

কক্সবাজার সদর ইউনিয়ন পূর্ব হিন্দুপাড়া এলাকার রাসেল শীল(২৭) বর্তমান নাম মোঃ রাসেল পিতা-মনিক চন্দ শীল, মাতা মিনজলা শীল’স্বেচ্ছায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। তাঁর বর্তমান নাম মুহাম্মদ রাসেল নুর। গত ১২/০১/২০২১ কক্সবাজার নোটারী পাবলিকের কার্যালয়ে স্বশরীরে উপস্থিত হয়ে বিজ্ঞ কৌশলী আইনজীবী নিকট এফিটেভিট মুলে (নং-৮৬) ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন।
হলফনামায় বলা হয় পিতা মনিক চন্দ শীল,মাতা মিনজলা শীল,গ্রাম পুর্ব হিন্দু পাড়া খুরুশখুল কক্সবাজার সদর। আমি একজন সচেতন ধর্মাবলম্বী হই। বিগত কিছুদিন যাবৎ আমি মহান শান্তির ধর্ম ইসলাম সম্পর্কিত যাবতীয় আচার অনুষ্টানসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ইসলামিক মাহফিলসহ ইসলাম ধর্মীয় বিভিন্ন কার্যকলাপ সম্পর্কিত বিষয়াদি অবগত হয়ে ইসলাম ধর্মের প্রতি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করার জন্য সিদ্ধান্ত গ্রহণ করি। আমার সিদ্ধান্তের কথা পূর্বপরিচিত একজন মুসলিমকে জানালে তিনি আমাকে একজন ইমাম সাহেবের কাছে নিয়ে যান। তিনি আমাকে ভালভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করে চিন্তাভাবনা করার জন্য সময় দেন। আমি অনেক চিন্তাভাবনা করে অত্যন্ত দৃঢ় চিত্তে ধর্মান্তরিত হওয়ার ইচ্ছা পুনরায় জানালে পাকপবিত্র হয়ে আসতে বলেন। আমি পাকপবিত্র হয়ে এসে মহান আল্লাহ প্রেরিত মহামানব প্রিয় নবী হয়রত মুহাম্মদ (সঃ)আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে ইসলাম ধর্মের মূলমন্ত্র পবিত্র কলেমা লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু মুহাম্মদ রাসুলুল্লাহ কলেমা শরীফ পাঠ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছি। আমার বাম নাম রাসেল শীল পরিবর্তন করে এখন থেকে মোঃ রাসেল নুর রাখা হয়েছে।একজন মুসলমান হিসাবে এখন থেকে আমার যাবতীয় কাগজপত্রে এবং পরিচয়ে উক্ত মুসলমান নাম মুহাম্মদ রাসেল নুর ব্যবহৃত হবে। আমি প্রতিজ্ঞা করেছি কখনও ইসলাম ধর্মের প্রতি অসম্মান প্রদর্শন করবনা। ইসলাম শরীয়তের যাবতীয় হুকুম-আহকাম মেনে চলব এবং প্রতিপালন করতে বাধ্য থাকব। ভবিষ্যতে আমি ধর্ম পরিবর্তন করবনা। অদ্য থেকে আমার পুর্বতন সনাতন ধর্ম এবং আমার পিতামাতার সহিত কোন সম্পর্ক নেই ও থাকবেনা। তবে জন্মদাতা পিতামাতাকে অবশ্যই আমৃত্যু সম্মান করব। ইসলাম ধর্ম গ্রহণের জন্য কেহ আমাকে প্ররোচিত কিংবা বাধ্য করেনি। স্বেচ্ছায়, স্বজ্ঞানে ধর্ম পরিবর্তনের এফিডেভিট সম্পন্ন করেছি।