মসজিদের ওজুখানা ভাঁঙ্গার সংবাদ ভাইরাল হওয়ায় নিউজ ভিশনের রিপোর্টারকে হুমকি; থানায় সাধারণ ডায়েরি।

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ২:৩৪ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২০

নিজস্ব প্রতিবেদক :

Advertisement

নিউজ ভিশনের স্টাফ রিপোর্টার মোঃ আব্দুল মুনঈমকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি ধমকি ও অশালীন ভাষায় গালিগালাজ করার ঘটনা ঘটেছে।

ঘটনার সুত্র হলো- নিউজ ভিশনের স্টাফ রিপোর্টার আব্দুল মুনঈম স্থানীয় গংগাচড়া থানার পশ্চিম বড়বিল মাস্টারপাড়া জামে মসজিদের ওযুখানা সন্ত্রাসী ও মাদকাশক্ত যুবক রুহুল আমিন ও তার সহকর্মীগণ কর্তৃক ভেঙ্গে ফেলার ঘটনা জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল নিউজ ভিশনে প্রকাশ করিলে নিউজটি অল্প সময়ের ব‌্যবধানে প্রায় ১ লক্ষ ১৬ হাজার ফেসবুক ব‌্যবহারকারী শেয়ার করার মাধ‌্যমে সোস‌্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়। ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা ন‌্যাক্কারজনরক এই ঘটনার সুষ্ট বিচার এবং অপরাধীর শাস্তি দাবী করেন।

নিউজ লিংক দেখুন :  রংপুরের গংগাচড়ায় মসজিদের ব্যবহৃত ওযুখানা ভেঙ্গে দিলেন এক দুর্বৃত্ত যুবক।

পরবর্তীতে ওই দুষ্কৃতিকারীদের বিরুদ্ধে দন্ডবিধি  ১৪৩/৪৪৮/৩২৩/২৯৫/৪২৭/৫০৬/১১৪ ধারায় মামলা দায়ের হয়  । যার নং-১২,তারিখ : ২৪/০৪/২০২০ ইং।

মামলার অনান্য আসামিরা পলাতক থাকলেও  রুহুল আমিন ঘটনার দিন গ্রেফতার হন । করোনা পরিস্থিতির কারণে বিজ্ঞ আদালতের করোনায় সে জামিনে মুক্ত হয়ে আসে ।

উক্ত রুহুল আমিন জামিন পেয়ে তার বেপরোয়া স্বভাব আরো বেড়ে যায়, রাস্তাঘাটে মসজিদের মুসল্লিদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে বিভিন্ন ভয় ভীতি দেখাতে শুরু করেন। এই হুমকিতে বাদ যায়নি মসজিদের মোতয়াল্লি, ইমাম ও দাতা এবং রক্ষনাবেক্ষনের কাজে জড়িত লোকজনও । সময়ে অসময়ে মামলার বাদী পক্ষের সংশ্লিষ্ট সকলকে হুমকি ও মামলা প্রত্যাহার করার জন্য চাপ দিতে থাকেন।

এদিকে মামলার বাদী মোঃ আনোয়ারুল ইসলামকে বিভিন্ন ভাবে হয়রানি হুমকি ধমকি মামলা প্রত্যাহার করে না নিলে মিথ্যা মামলা দিয়ে ফাসাবে বলে ভয় ভীতি দেখিয়ে আসছিলো।

সর্বশেষ নিউজ ভিশন এর স্টাফ রিপোর্টার মোঃ আব্দুল মুনঈমকে এই ঘটনার নিউজ করা এবং সেটা সোস‌্যাল মিডিয়ায় লক্ষ লক্ষ মানুষের কাছে পৌছে দেওয়ার ক্ষোভে প্রকাশ্য গালিগালাজ, অপহরণপুর্বক খুন করে গুম করার হুমকি ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন আপত্তিকর মন্তব্য করে উক্ত প্রকাশিত নিউজ পত্রিকা থেকে সরিয়ে নেওয়ার জ‌ন‌্য ক্রমাগত চাপ দিতে থাকে ।

সাংবাদিক মুনঈম ঘটনাটি নিউজ ভিশন সম্পাদককে জানালে  তিনি গংগাচড়া মডেল থানার অফিসার ইন চার্জ সুশান্ত কুমার সরকারকে অবগত করতে পরামর্শ দেন । সাংবাদিক  মুনঈম এই বিষয়ে  ওসি গংগাচড়া মডেল থানার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি একটি সাধারণ ডায়েরি করার জন্য বলেন এবং উক্ত ডায়েরী তদন্ত করার জন্য এস আই আরিফ কে নির্দেশ প্রদান করেন।

ওসি গংগাচড়া মডেল থানা জানান , রুহুল বেপরোয়া হয়ে গেছে মাদক সেবন করে, সে এসব পাগলের প্রলাপ বকছে, সে যতই নড়বে ততই ফাঁদে পড়বে এবং আটকা পড়বে। সে উস্কানিমূলক ভাবে এসব করছে যাতে বাদী পক্ষ চড়াও হয়ে তাকে আক্রমণ করে এবং সে একটি মামলা করার সুযোগ খুজছে। তাতে করে সেও একটু জোড়ালো অবস্থানে আসতে পারবে বলে মনে করছে। আমি মসজিদের ওযুখানার ভাংগা ঘটনাটি তদন্ত নিজেই করেছি। রুহুলের যথাযথ বিচার হবে আমি প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবো।

সাংবাদিক মুনঈম ও অন‌্যান‌্যদের হুমকি দেয়ায় মসজিদের মোতয়াল্লি ওয়ালিউল্যাহ বাদী হয়ে গংগাচড়া মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। ডায়েরিটি ০৮/০৭/২০২০ তারিখে করা হয় যার ডায়েরি নং ৪২৩/২০।

উল্লেখ‌্য যে, সাংবাদিক মুনঈম ঢাকা কলেজের পরিসংখ্যান বিভাগের অনার্স ৩য় বর্ষ পরীক্ষার্থী  । তিনি উক্ত মসজিদের মোতয়াল্লী পরিবারের সন্তান ।

সন্ত্রাসী কর্তৃক নিউজ ভিশনের এই মেধাবী স্টাফ রিপোর্টারকে হুমকি দেওয়ায় নিউজ ভিশন পরিবারের পক্ষ থেকে ত‌ীব্র নিন্দা জ্ঞাপন ও হুমকিদাতা সন্ত্রাসীকে অবিলম্বে গ্রেফতার করে আইনানুগ ব‌্যবস্থা গ্রহনের জ‌ন‌্য স্থানীয় পুলিশ প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন ।