মনে পড়ে-মিজানুর রহমান

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ৩:০১ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১৯, ২০২০

——————
আজ বছর খানেক হয়ে এলো প্রবাসে।
প্রবাস জীবন যে কি নিদারুণ কষ্টের,
কি বিষাদময়!
তবে আমার কষ্ট মনে হয় না;
বিশ্বাস করো,
তোমার দেয়া কষ্টের তুলনায় এইটা একেবারেই নগন্য।

বয়স তখন সতের হবে হয়তো..
আর তার! বয়স নেই।
“নেই মানে মেয়েদের বয়স জানতে নেই,
বলতেও নেই।”

তোমার কি মনে পড়ে…
মনে পড়ে সেই চিঠির কথা?
তোমার প্রথম চিঠি আমার তরে,
“দেখা করা যাবে নদীর ধারে?
কুয়াশার চাদর গায়ে খুব ভোরে।”

এখন আর কেউ বলে না,
বলারও নেই..
দেখ! দেখ!
কি সুন্দর প্রবহমান পাগলা !

সেদিন তুমি হাতে হাত রেখে বলেছিলে-
এভাবেই যদি জীবন সবটা কেটে যেত।

কিন্তু কিছুদিন যেতেই হঠাৎ…
আমাদের সাজানো স্বপ্নের নীল আকাশে-
ঘনকালো মেঘ ভেসে আসে।
মেঘটা সরে যাবার আগেই,
তুমি অন্যের আকাশের চাঁদ হয়ে গেলে।
মেঘেদের আর যাওয়া হলো না।
উল্টো আরও মেঘদল এসে জমা হলো।

নতুন করে জীবন শুরু করলে তুমি
তোমার ঘর হলো, বর হলো…
কন্যা সন্তানের জননীও হলে
কিন্তু আমি অকৃতদার’ই রয়ে গেলাম।

এখন তুমি শুধুই স্মৃতির পাতা।
একটা করে পাতাতে আঁখি বুলাই,
আর আঁতকে উঠি।