বাঁধন, স্যার এ এফ রহমান হল ইউনিটের কমিটি ঘোষণা

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ২:১৬ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৩০, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

মুহাম্মদ ইলিয়াস হোসেনকে জোনাল প্রতিনিধি, জাহিরুল ইসলামকে সভাপতি ও সাব্বির হোসেনকে সাধারণ সম্পাদক করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্যার এ এফ রহমান হলের বাঁধন ইউনিটের ২০২০ কার্যকরি কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। ২৯ নভেম্বর(বৃহস্পতিবার) রাতে হলের বাঁধন অফিসে এই কমিটি ঘোষণা করা হয়। এর আগের কমিটিতে সভাপতি ছিলেন মোঃ সালাহ উদ্দিন এবং সাধারণ সম্পাদক ছিলেন মাঈনুদ্দিন সালেহ।

নবগঠিত কমিটির অন্যরা হলেন- সহসভাপতি(১) মাঈনুদ্দিন সালেহ; সহসভাপতি(২) সাইফুল ইসলাম; সহসাধারণ সম্পাদক নাহিদুল ইসলাম; সাংগঠনিক সম্পাদক রবিউল আলম; সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ পলাশ, কোষাধ্যক্ষ জাহিদ হাসান; দপ্তর সম্পাদক রানা, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ওয়ালিউল্লাহ; তথ্য ও শিক্ষা সম্পাদক সেলিম; সদস্য-সজল, জাফর, নাইম, তানজিল এবং সাকিব।

কমিটি প্রদানকালে বাঁধন, স্যার এ এফ রহমান হল ইউনিটের উপদেষ্টা মোঃ সাগর আজিজ, ইমরুল হাসান, মোঃ আনোয়ার হোসাইন, আলাল বাবু ইফতি, মিনহাজুল আবেদীন আরাফাত, সাইদুর সুমন, আরিফ উল্ল্যাহ, ওপু, হোসেন আলী, ফরিজুল ইসলাম, একেএম মুনির, শামীম আহমেদ, আপেল মাহমুদ এবং বাঁধন জোনাল পরিষদের বর্তমান সভাপতি আহসান উল্লাহ পাঠান, উপদেষ্টা মোঃ ফয়সাল এবং জহুরুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

এসময় উপদেষ্টা সাগর আজিজ(উইমেন এমপাওয়ারমেন্ট জেন্ডার ইকুয়ালিটিতে কর্মরত) নতুন কমিটিকে অভিনন্দন জানিয়ে হলে অবস্থানকারী উপদেষ্টাদের নবগঠিত কমিটিকে বিভিন্ন কাজে পরামর্শ এবং বেশি সময় প্রদানের মাধ্যমে কাজের গতি বৃদ্ধিতে ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান।

ইমরুল হাসান(সিনিয়র সহকারী কমিশনার) তার সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বলেন, বাঁধনে পোস্ট পাওয়া বড় বিষয় নয়, পোস্ট হলো একটি বাড়তি দায়িত্ব অর্পনমাত্র। মুমূর্ষু রোগীর প্রয়োজনে রক্ত ম্যানেজ করাই হলো বাঁধনের মূল কাজ।

মোঃ আনোয়ার হোসাইন(এক্সপো গ্রুপ, বাংলাদেশ এর এসিট্যান্ট জেনারেল ম্যানেজার) বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় লাইফে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন করতে হবে। অবশ্যই সংগঠন করার দরকার আছে কেবলমাত্র পাঠ্যবইয়ের জ্ঞান অর্জন করলেই হবে না। পড়াশুনা ঠিক রেখে বাঁধনের মতো স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনে যুক্ত থেকে নিজেকে সমৃদ্ধ করতে হবে।

প্রসঙ্গত, “একের রক্ত অন্যের জীবন, রক্তই হোক আত্মার বাঁধন” এই স্লোগানকে ধারণ করে বাঁধন স্বেচ্ছাসেবী রক্তদাতা সংগঠন হিসেবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ্ হলে ১৯৯৭ সালের ২৪ অক্টোবর প্রতিষ্ঠিত হয়। এরপর ১৯৯৮ সালের ২২ মে স্যার এ এফ রহমান হলের ইউনিটটি প্রতিষ্ঠিত হয়। বাঁধনের মূল কাজ হলো রক্তের প্রয়োজনে আসা রোগীদের রক্ত সংগ্রহ করে দেয়া, নিজেরা স্বেচ্ছায় রক্ত দেয়া এবং অন্যকে রক্তদানে উৎসাহিত করা। বাঁধনের লক্ষ্য হল এমন একটি দিন আসবে যখন সবাই নিজেদের রক্তের গ্রুপ জানবে এবং রক্তের অভাবে কেউ আর মারা যাবে না।