দৈনিক কক্সবাজার ৭১ পত্রিকা অফিসে হামলা ও ভাংচুর: এমপি কমল ও জেলা প্রশাসকের নিন্দা

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ১২:১৯ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ৫, ২০২০

আব্দুল গফুর,কক্সবাজার থেকে–

কক্সবাজার জেলার সদর উপজেলার চৌফলদন্ডীর ইয়াবা সম্রাট কিউবা রাখাইন ও শহরের টেকপাড়ার ইয়াবা মিজানের বিরুদ্ধ অনুসন্ধানী ধারাবাহিক নিউজ করায় কক্সবাজার জেলার বহুল প্রচারিত ও পাঠক নন্দিত দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর অফিসে হামলা চালিয়ে ভংচুর করেছে ইয়াবা সংশ্লিষ্টরা।গত১৯ জুলাই কক্সবাজার সদর থানার পুলিশ শহরের টেকপাড়া মাঝির ঘাট এলাকা থেকে ইয়াবাসহ আটক করে মিজানের সিন্ডিকেটের প্রায় কোটি টাকার ইয়াবা আটক করলেও ইয়াবা মিজানের সিন্ডিকেটের সবাই ছিল ধরা ছোঁয়ার বাইরে থেকে যায়। তাছাড়া চৌফলদন্ডী ইয়াবা সম্রাট কিউবা রাখাইনের বিরুদ্ধে ধারাবাহিক নিউজ করে আসছিল দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকা। উল্লেখ্য যে, গত সপ্তায় মিজান পুলিশের হাতে নিহত হয়। তাদের বিরুদ্ধে দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকায় ধারাবাহিক অনুসন্ধানী নিউজ করতে থাকায় পত্রিকার নিউজ বন্ধ করার জন্য টেকপাড়া এলাকার মৃত নুরুল হক কোম্পানী পুত্র বর্তমানে বাহারছড়া এলাকায় অবস্থানরত ফরিদুল হক (নান্নু)তদবীর চালায়। কিন্তু পত্রিকা কর্তৃপক্ষ নিউজ বন্ধ না করায় উক্ত নান্নু আজ বিকাল ৩টা ৫৮মিনিটের সময় ৪/৫ জন স্বসস্ত্র সন্ত্রাসী নিয়ে পত্রিকা অফিসে অতর্কিত হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। এতে পত্রিকা অফিসের কম্পিউটার ভাংচুর সহ আসবাবপত্রের ব্যপক ক্ষতিসাধন হয়। তাছাড়া বেশ কিছু তথ্যপত্র ও জরুরী কাগজপত্র নিয়ে যায়। এতে করে জেলার সাংবাদিকদের মাঝে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।
পত্রিকার প্রধান সম্পাদক ও প্রকাশক মোঃ বেলাল উদ্দিন বেলাল বলেন আফিসে কেউ না থাকা অবস্থায় নান্নু ও তার ইয়াবা সিন্ডিকেটর বাহিনী অতর্কিত হামলা করে অফিসে সংরক্ষণে থাকা মুল্যবান কাগজপত্র নিয়ে পালিয়ে যায়। এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে।
এ বিষয়ে কক্সবাজার সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শাহাজাহান কবির ততক্ষণিক ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করেন।তিনি বলেন অপরাধী যে হোক না তাকে আইনের আওতায় আনার হবে।

এদিকে দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকায় অফিসে ভাঙচুরের ঘটনায় কক্সবাজার সাংবাদিক মহলের মধ্যে চরম উদ্বেগ
ও উৎকন্ঠা বিরাজ করছে।মাদক নির্মূলে সরকার জিরোট্রলারেন্স ঘোষনা পর থেকে বহুল প্রচারিত জননন্দিত দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার তথ্য অনুসন্ধানী প্রতিবেদন প্রকাশ করে মাদক নির্মূলে প্রশাসনকে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন।তারিই ধারাবাহিকতা ১৯জুলাই মাঝিরঘাটে এক কোটি ইয়াবা লুটকারী সেই মিজান বেনাপোল থেকে আটক গত ৩০ জুলাই চৌফলদন্ডীতে ৩০জনের ইয়াবা সিন্ডিকেট আলোচিত ইয়াবা সম্রাট কিউবা রাখাইন এখনো ধরাছোঁয়ার বাইরে পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ করার পর থেকে ইয়াবাকারবারীর পক্ষে হয়ে তদবির করেন শহরে টেকপাড়া এলাকায় মাদকাসক্ত নান্নু ও তার সিন্ডিকেট তাদের কথায় কর্ণপাত না করায় ক্ষিপ্ত হয়ে ধারালো ছুরি, হাতুড়ি,লোহার রড লাঠিসোঁটা নিয়ে হামলা চালায় অফিসের ভেতরে ভাংচুর, সম্পাদকের ওপর হামলার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে কক্সবাজার জেলা সাংবাদিক নেতা কর্মীরা।

এ ব্যাপারে দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার সম্পাদক রুহুল আমিন সিকদার বলেন বিকেল সাড়ে তিনটার সময়ে দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকার কার্যালয়ে হামলা, ভাঙচুর ও মূল্যবান আসবাবপত্র নষ্ট করার ঘটনায় আমরা গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।’
প্রবীণ সাংবাদিক নুরুল ইসলাম বলেন সাংবাদিক ও সম্পাদকে ওপর হামলার ঘটনা খুবই দুঃখজনক। সংবাদপত্র ও সাংবাদিকের ওপর এ হামলা সংবিধান, বাক স্বাধীনতা, মানবাধিকার ও আইনের শাসনের ওপর এক বেদনাদায়ক আঘাত। একটি গণতান্ত্রিক দেশে জনগণ এ দৃশ্য দেখতে চায় না।তিনি আরো বলেন অবিলম্বে সন্ত্রাসীদের আইনের আওতায় আনার দাবি করছি।

সেই সঙ্গে পত্রিকা, সাংবাদিক ও সংবাদ কর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা নজর দেওয়া জরুরী মনে করছে তারা।

অন্যদিকে দৈনিক কক্সবাজার একাত্তর পত্রিকা অফিসে ভাংচুর হামলায় ঘটনার তিব্র নিন্দা জানিয়েছেন কক্সবাজার ৩ আসনের সাংসদ সদস্য সায়মুম সরোয়ার কমল ও কক্সবাজার জেলা প্রশাসক কামাল হোসেন সহ সুশীল সমাজের নেতা কর্মীরাও।