‘ছয়’ এর বৃত্তে আটকে যেন ওপেনাররা

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ২:২১ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০১৯

ইকবাল আজাদ, স্টাফ রিপোর্টার :

Advertisement

ছয় রানের গণ্ডিতে যেন আটকে আছেন বাংলাদেশের দুই ওপেনার ইমরুল কায়েস এবং সাদমান ইসলাম। প্রথম ইনিংসে দুজনেই ব্যক্তিগত ৬ রানে আউট হলেও দ্বিতীয় ইনিংসে একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হলো যেন আবার। প্রথম ইনিংসের সমপরিমাণ বল খরচ করে দ্বিতীয় ইনিংসে ৬ রান তুলে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন তরুণ তুর্কী সাদমান ইসলাম। এর আগে গত ইনিংস থেকে ৫ বল কম খেলা অভিজ্ঞ ইমরুল কায়েস ব্যক্তিগত ৬ রান তুলে বোল্ড হয়ে মাঠ থেকে বিদায় হোন।

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশীপের প্রথম ম্যাচে ভারতের সাথে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। ভুল সিদ্ধান্তের ভরাডুবিতে ১৫০ রানে প্রথম দিনেই কাটা পড়ে বাংলাদেশের সবকটি উইকেট। শুরুতেই ওপেনার ইমরুল কায়েস এবং সাদমান ইসলামকে হারিয়ে খেই হারিয়ে ফেলে বাংলাদেশ। মাঝে মুমিনুল হক এবং মুশফিকুর রহিম প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করলেও তা আর বেশিক্ষণ স্থায়িত্ব লাভ করেনি।

প্রথম দিনের শেষ ভাগে ভারত ব্যাটিংয়ে নামলে শুরুতেই রোহিতের উইকেট হারিয়ে বসে। রোহিতও বাংলাদেশী ওপেনারদের মতো রাহির বলে আউট হয়ে ব্যক্তিগত ৬ রানে মাঠ ছাড়েন। ব্যক্তিগত ৩২ রানে আগারওয়াল ক্যাচ দিলেও সহজ ক্যাচ লুফে নিতে ব্যর্থ হোন স্লিপ ফিল্ডার ইমরুল কায়েস। দ্বিতীয় দিনে জীবন পাওয়া আগারওয়াল মাত্র ১২ ইনিংসে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরি তুলে নেন। দিন শেষে ভারত ৪৯৩ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে মাঠ ছাড়ে।

তৃতীয় দিনের শুরুতে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় টিম ইন্ডিয়া। ৩৪৩ রানের লিড তাড়া করতে গিয়ে শুরুতেই আবার পরাস্ত হোন বাংলাদেশের টপ অর্ডারগণ। ইমরুল ৬, সাদমান ৬, কাপ্তান মুমিনুল হক ৭ এবং মিথুন ১৮ রান করে ডাগ-আউটের পথ ধরেন। ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতা এবং বোলারদের বিচক্ষণতার অভাবে বাংলাদেশ যে আরেকটি টেস্ট পরাজয়ের স্বাদ পেতে যাচ্ছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

সর্বশেষ স্কোরঃ
বাংলাদেশঃ ৬৫/৪ (মুশফিক ৯*, রিয়াদ ৯*) দ্বিতীয় ইনিংস।

মুহা. ইকবাল আজাদ, স্টাফ রিপোর্টার।