করোনা যোদ্ধা মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত

নিউজ নিউজ

এডিটর

প্রকাশিত: ১:৪২ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ২৯, ২০২০

মোস্তাকিম হোসেন,হিলি স্থলবন্দর সংবাদদাতা:

Advertisement

করোনা প্রাদূর্ভাবে দিনাজপুরের হাকিমপুর (হিলি) পৌর সভার মানবিক মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত সাহসীকতার সাথে অসহায় মানুষের কাছে পৌঁছে দেন খাদ্য সামগ্রী। করোনার শুরুতেই হ্যান্ডবিল, মাক্স, সাবান বিতরণ করেন। সড়কে জীবানুনাশক স্প্রে ও স্থানে স্থানে সাবান পানির ব্যবস্থা করেন। আবাসিক এলাকায় মশা নিধন ওষধ স্প্রে , পৌর সভায় ও জিরোপয়েন্টে জীবানুনাশক টানেল স্থাপন। লকডাউনে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ উপহারসহ ব্যাক্তি উদ্যোগে ৬ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেন। প্রদান করেন ঈদ উপহার, গত ঈদুল ফিতরে সাড়ে ৭ হাজার পরিবারের মাঝে নিজ তহবিল থেকে প্রদান করেন সেমাই চিনি এবং আসন্ন ঈদুল আযহায় প্রধানমন্ত্রীর সহায়তার ৩ হাজার পরিবারকে ১০ কেজি করে চাল দেয়ার পাশাপাশি নিজ তহবিল থেকে আরোও ১ হাজার পরিবারকে ১০ কেজি করে চাল প্রদান করেন। এছাড়াও ২৫ শে জুন থেকে পৌরসভায় চালু করেন ‘নো মাস্ক নো ইন্ট্রি’ এবং পরবর্তীতে নো মাস্ক নো সেলস্ কর্মসূচী চালু করেন। বাংলাদেশে এই পৌরসভায় প্রথম এই কর্মসূচী চালু করা হয়েছে বলে জানান সচেতন মহল। করোনা আক্রান্তের বাড়ি বাড়ি গিয়ে খাদ্য ও ফল পৌছে দেন। এবং সার্বক্ষনিক খোঁজ খবর রাখায় পৌর এলাকায় করোনা যোদ্ধার খেতাব পান মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত। পৌর বাসি তাকে মানবতার ফেরিওয়ালা বলেও অবহিত করেন।

হাকিমপুর উপজেলার ১৬ দশমিক ৭ বর্গ কিলোমিটার আয়তন বিশিষ্ঠ হাকিমপুর (হিলি) পৌরসভা গঠিত। এখানে মোট জনসংখ্যা ৫০ হাজার জন। এটি সীমান্তরবর্তী পৌর সভা। পৌর এলাকায় রয়েছে দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তর স্থল বন্দর হিলি স্থল বন্দর ও একটি জুটমিল।
২০১৬ সালে প্রথম বারের মত মেয়র নির্বাচিত হন। এছাড়াও হাকিমপুর পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি নির্বাচিত হন।

জনগণের জীবন যাত্রা ও পৌর এলাকার নাগরিক সেবা নিশ্চিত করতে কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি রাস্তাঘাট নির্মাণ, ড্রেনেজ ব্যবস্থার উন্নয়ন, অধুনিক পৌর ভবন, পৌরভার অভ্যন্তরে বিভিন্ন মসজিদ মাদ্রাসা উন্নয়নে পৌরসভা ও নিজ তহবিল থেকে অর্থ প্রদান। শিক্ষানুরাগী এ মেয়র ঔতিহ্যবাহী ছাতনী রাউতারা জে.এম ফযিল মাদ্রাসায় সভাপতি পদে থেকে মাদ্রাসার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডসহ সার্বক্ষনিক শিক্ষক ও অভিভাবকদের সাথে সুসম্পর্ক রেখে ভালোফলাফল করতে সহায়তা করছেন। এছাড়াও পৌর সভার অভ্যন্তরে যেসকল ছাত্র-ছাত্রী ভালো ফলাফল অর্জন করছেন তাদের শুভেচ্ছা জানাতে ফুল ও মিষ্টি নিয়ে বাড়ি বাড়ি গিয়ে উপস্থিত হয়ে শুভেচ্ছা জানান। পৌরসভার রাজস্ব আদায় বৃদ্ধি করে ‘গ’ শ্রেণী থেকে ‘খ’ শ্রেণীতে উন্নীত করেন।

মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত জানান, হাকিমপুর (হিলি) পৌর সভার জনগণের উন্নয়নের প্রত্যাশা অনুযায়ী চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ করে যাচ্ছি।তিনি আরোও জানান, এ পৌরসভায় মাদক, ঘুষ, দুর্ণীতি, সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজদের কোন স্থান নেই।