রবিবার ২৫শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
আমাদের সম্পর্কে
যোগাযোগ

আসুন টেবিল সাংবাদিকতায় মনোনিবেশ করি!

জুলাই ২২, ২০২১
প্রিন্ট
নিউজ ভিশন

মাঠের সাংবাদিকতায় অনেক বিপদ। শ্রম বেশি। খরচ আছে। মার খাওয়ার ভয়ও থাকে। শুধু কি তাই? না। বরং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় আসামি হয়ে স্ত্রী, সন্তান আর স্বজনদের থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে কারাগারে থাকার আশঙ্কাও উড়িয়ে দেয়া যায় না। এমনকি আপনার প্রতিষ্ঠান আপনাকে চাকরিচ্যুতও করতে পারে মাঠের সাংবাদিকতার ‘অপরাধে’। কাজেই এই ঝুঁকি নেয়ার কী দরকার? এর চেয়ে বিকল্প ও উত্তমপন্থা এখন উম্মুক্ত। টেবিল সাংবাদিকতা! তাহলে এতে মনোনিবেশ করাই কি বুদ্ধি মানের কাজ নয়?
আপনি আমার সাথে দ্বিমত পোষণ করতে পারেন। তবে উচ্চফলনশীল সংবাদমাধ্যম ও সাংবাদিকতার যুগে এখন সেটাই চলছে হরদম।
অনেকের আবার টেবিল সাংবাদিকতার ব্যাখ্যা, গুরুত্ব, প্রয়োজনীয়তা, সময়োপযোগিতা এবং এর সুফল ইত্যাদি নিয়ে কৌতূহল থাকতে পারে। চলুন, এসব বিষয়ে সাম্যক ধারণা নেয়া যাক-
সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনো বিষয় ভাইরাল হলে তা নিয়ে টেবিল-চেয়ারে বসেই নিউজ করা যায়। আরো ১০টি হাউজ যখন এসব নিয়ে নিউজ করে তখন আপনার-আমার করাতেও দোষ নেই। একইভাবে সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে সব বিটেরই এখন ম্যাসেঞ্জার গ্রুপ আছে। একজন একটা প্রেস বিজ্ঞপ্তি লিখে গ্রুপে দিলে গ্রুপের অন্যরা নিজস্ব সংবাদদাতা যোগ করে নিজের প্রতিষ্ঠানে পাঠাতে পারেন। এরপর সেটা ছাপানো কিংবা আপ করা সবই সম্ভব এক টেবিলে বসেই। তাছাড়া তথ্য বিবরণী তো থাকেই প্রায় প্রতিদিন। সরকারও চায়, উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের প্রচারণা। আমরাও তা লিড নিউজ হিসেবে চালিয়ে দিতে পারি প্রতিদিন। এতে দুই লাভ। সরকার খুশি হলো। আমিও উন্নয়ন সাংবাদিকতায় অংশগ্রহণ করতে পারলাম টেবিলে বসে। এসব ক্ষেত্রে কোনো ঝুঁকি থাকে না। অবশ্য গ্রুপের প্রেস বিজ্ঞপ্তি কখনো কারো পক্ষে-বিপক্ষে হতে পারে। এক্ষেত্রে একটু সাবধানী হলেই আপনি সফল সাংবাদিক। এছাড়া কপি-পেস্টের সাংবাদিকতা তো সবারই জানা। এভাবেই এগিয়ে যাচ্ছে আমাদের গণমাধ্যম ও সাংবাদিকতা।
গণমাধ্যম আসলে কী?
এবার একটু ভিন্ন প্রসঙ্গে আসি। তবে আমি কোনো জ্ঞান দিতে চাচ্ছি না। দীর্ঘদিনের সাংবাদিকতার অভিজ্ঞতায় দেখা আর শোনা কিছু কথা শুধু শেয়ার করতে চাই-
১. ২০১৫ সালের মধ্যবর্তী সময়ে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাগর-রুনী মিলনায়তনে একটি অনলাইনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) তৎকালীন ভিসি প্রফেসর ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক স্যার। বক্তব্য রাখতে গিয়ে ঢাবির সাংবাদিকতার এই স্যার বলেছিলেন, ‘গণমাধ্যম বলতে আমরা বুঝি, যেটি গণমানুষের কথা বলে। কিন্তু দেশে এমন গণমাধ্যম কয়টি আছে? আমরা দেখি গণমাধ্যমের নামে ব্যক্তিমাধ্যম, রাজনৈতিকমাধ্যম কিংবা ব্যবসায়ীমাধ্যম। এগুলোকে আসলে গণমাধ্যম বলা যায় না।’
২. তথা কথিত একটি জাতীয় দৈনিকের সম্পাদকের বক্তব্য হচ্ছে এমন, ‘আমি পত্রিকা ছাপি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য। আমার পত্রিকা আমি পড়ি আর প্রধানমন্ত্রী পড়েন। আর কেউ পড়লে না পড়লে আমার কিছু যায় আসে না।’
৩. অর্ধযুগ আগের কথা। সাংবাদিকদের পদ-মর্যাদার ব্যাখ্যায় পেশার একজন নবীনের বক্তব্য ছিল ঠিক এমন, ‘বহু আগে রাজা-বাদশাসহ ধনাঢ্য বক্তিরা নিজেদের, সিংহাসনের, বাড়িঘরের ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পাহারাদারির জন্য নিরাপত্তাকর্মী রাখতেন। একটা সময় দেখা গেলো, নিরাপত্তাকর্মী বা বডিগার্ডরা বিশ্বাসঘাতকতা করে। এরপর তাদের নিরাপত্তায় যুক্ত হলো অন্যতম বুদ্ধিমান প্রাণী, কুকুর। আধুনিক তথ্য প্রযুক্তির যুগে দেখা গেলো, নিরাপত্তাকর্মী আর কুকুর দিয়েও সব টিকিয়ে রাখা যাচ্ছে না। সুরতাং এই তালিকায় যোগ হয়েছে সংবাদমাধ্যম আর সাংবাদিক।’
আমি সাংবাদিকতার ছাত্র নই। দীর্ঘদিন গণমাধ্যমে কাজ করতে করতে সাংবাদিকতা বিষয়ে যতকুটু শিখেছি, তাতে আমার কাছে মনে হচ্ছে, এই উচ্চফলনশীল পেশায় টিকে থাকা বেশ কঠিন। সরকারি চাকরির মতো এখানেও বিভিন্ন জোর থাকতে হয়। একইসাথে তৈল শাস্ত্রের ব্যবহার বিধি ভালো আয়ত্তে থাকতে হবে। নয়তো টেবিল সাংবাদিকতার যুগেও আপনার জন্য পেশায় টিকে থাকা অসম্ভব।

☆ জেমস আব্দুর রহিম রানা।
গণমাধ্যমকর্মী ও সদস্য –
বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) ও সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি, বাংলাদেশ।

সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
logo

নিউজ ভিশন বাংলাদেশের একটি পাঠক প্রিয় অনলাইন সংবাদপত্র। আমরা নিরপেক্ষ, পেশাদারিত্ব তথ্যনির্ভর, নৈতিক সাংবাদিকতায় বিশ্বাসী।

সম্পাদক ও প্রকাশক : মুহাম্মদ রফিকুল ইসলাম

ঢাকা অফিস: ইকুরিয়া বাজার,হাসনাবাদ,দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ,ঢাকা-১৩১০।

চট্টগ্রাম অফিস: একে টাওয়ার,শাহ আমানত সংযোগ সেতু রোড,বাকলিয়া,চট্টগ্রাম |

সিলেট অফিস: বরকতিয়া মার্কেট,আম্বরখানা,সিলেট | রংপুর অফিস : সাকিন ভিলা, শাপলা চত্ত্বর, রংপুর |

+8801789372328, +8801829934487 newsvision71@gmail.com, https://newsvisionbd.com
Copyright@ 2021 নিউজ ভিশন |
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ‌্য মন্ত্রণালয়ে আবেদিত ।