দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনায় শেষ হলো উন্নয়ন মেলা-২০১৮

55ebbf8dc3bacb1d36c0bc23664b617c.0.jpg

মোঃ আবু সঈদঃদক্ষিণ সুনামগঞ্জ থেকেঃ
দক্ষিণ সুনামগঞ্জে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনায় শেষ হলো উন্নয়ন মেলা-২০১৮।গতকাল শনিবার বিকাল ৪ঘটিকায় সমাপনী ও পুরষ্কার বিতরণী পর্বে দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ হারুন অর রশীদের সভাপতিত্বে ও ডাটা অপারেটর মনোয়ার হোসেন হিমেল এর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা প্রকৌশলী রুবাইয়াত জামান, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ইখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী,সমবায় ককর্মকর্তা মোঃ মাসুদ আহমদ, আব্দুল মজিদ কলেজের অধ্যক্ষ রবিউল ইসলাম, জয়কলস ইউ পি চেয়ারম্যান মাসুদ মিয়া ,দরগাপাশা ইউ পি চেয়ারম্যান মনির উদ্দিন, সিনিয়র সহ-সভাপতি হাজী তহুর আলী,আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ তেরাব আলী,উপজেলা যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি প্রভাষক মোঃ নুর হোসেন। এ সময় উপস্হিত ছিলেন উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বজলুর রহমান, মৎস্য কর্মকর্তা সমীরন চন্দ্র সাহা প্রধান শিক্ষক মানিক লাল চক্রবর্তী, আশিষ কুমার চক্রবর্তী,জেলা কৃষকলীগের সদস্য জাহাঙ্গীর আলম,হিউম্যান রাইটস ওয়াচ ট্রাস্ট অব বাংলাদেশ (মানবাধিকার)এর বিভাগীয় সদস্য ও উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক এবং সুশাসনের জন্য নাগরিক -সুজন এর সাধারণ সম্পাদক শিক্ষানবীশ এডভোকেট মোঃ আবু সঈদ,হিউম্যান রাইটস ওয়াচ ট্রাস্ট অব বাংলাদেশ (মানবাধিকার)এর বিভাগীয় সদস্য ও উপজেলা শাখার সহ- সাধারণ সম্পাদক,সুশাসনের জন্য নাগরিক -সুজন এর সহ- সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক মোঃ শফিকুল ইসলাম প্রমুখ। পুরষ্কার বিতরণীতে প্রাথমিক পর্যায়ে কুইজ প্রতিযোগীতায় প্রথম স্হান দখল করেন লিকন আহমদ, ৫ম শ্রেণী, তেঘরিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,মাধ্যমিক পর্যায়ে উন্নয়ন কর্মকান্ডমূলক বক্তৃতায় প্রথম স্হান দখল করে সৌরভ মিয়া, ১০ম শ্রেণী, সুরমা উচ্চ বিদ্যালয় ও দপ্তর পর্যায়ে উন্নয়ন কার্যক্রমে প্রথম স্হান অর্জন করেন স্হানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর(এলজি ইডি),২য় স্হানে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস এবং ৩য় স্হানে দরগাপাশা ডিজিটাল সেন্টার এবং সর্বশেষে সকল অংশগ্রহণকারীদের সম্মাননা পুরস্কা র প্রদান করা হয়।উল্লেখ্য যে, গত ১১ই জানুয়ারি ২০১৮ ইং রোজ বৃহস্পতিবার গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শুভ উদ্ভোধনের মধ্য দিয়ে সারাদেশের ন্যায় দক্ষিণ সুনামগঞ্জে উন্নয়ন মেলা-২০১৮ শুরু হয়। উন্নয়ন মেলায় উপজেলার সরকারী, বেসরকারি ৩৯ টি দপ্তর অংশগ্রহণ করে। প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক ছাত্র/ছাত্রীদের মধ্যে বক্তৃতা প্রতিযোগিতা,বির্তক প্রতিযোগিতা, সরকারের উন্নয়নমূলক কার্যক্রম উপস্হাপন, ছাত্র/ছাত্রীদের বিষয়ভিত্তিক
প্রতিযোগিতা, যাদু প্রর্দশনীতে উৎসব মুখর হয়ে উঠে মেলা আয়োজন স্হল। শ্রোতাদের হৃদয়ে আকর্ষণ করে প্রতিদিনই উন্নয়ন বিষয়ক আলোচনার ব্যাপক সমাগমে। প্রতিদিন অপরাহ্নে সংস্কুতির রাজধানী সুনামগঞ্জের সুনামধন্য শিল্পীদের ও বিদ্যালয়ের ছাত্র/ছাত্রী, শিক্ষক/শিক্ষিকাসহ ও সকল শ্রেণী পেশার মানুষের অংশগ্রহণে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্টান।

Top