আমার দলের নেতাকর্মীদের ছাড়া আমি এক ‘পা’ নড়বো না : দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

received_1782366125120550.jpeg

নিউজ ডেস্ক:
আজ বুধবার (২০ ডিসেম্বর) মিথ্যা মামলায় হাজিরা দিতে বকসী বাজারের আলীয়া মাঠে স্থাপিত অস্থায়ী আদালতে যান দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া। এ সময় হাইকোর্টের মাজার গেট এলাকায় পুলিশ যখন নির্মম কায়দায় বিএনপির কর্মী ও সমর্থকদের ধড়পাকড় এবং হাইকোর্টের ভেতরে সব গেটে পরিকল্পিতভাবে নেতাকর্মীদের আটকিয়ে রেখে গেটে তালা মেরে রাখে তা দেখে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া গাড়ি থেকে নেমে পড়েন। তিনি পুলিশকে সাফ জানিয়ে দেন নেতাকর্মীদের ছাড়া না হলে তিনি সেখান থেকে এক পা’ও নড়বেন না।

এসময় নেতাকর্মীরা মহুর্মুহু স্লোগান দেন। হাইকোর্টের পুলিশি ব্যারিকেট ভেঙ্গে নেতাকর্মীদের বেড়িয়ে আসে। এরপর নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়েই বেগম খালেদা জিয়া গুলশানের বাসার উদ্দেশে রওনা হোন। এরপর প্রেসক্লাব মোড়ে বিভিন্ন নারী নেতৃবৃন্দের সাথে নারী পুলিশের হাতাহাতি হয়। সেখান থেকেও পুলিশ আটকের চেষ্টা করে। অতঃপর ছাত্রদল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল এবং বিএনপির নেতাকর্মীরা প্রেসক্লাব ব্যারিকেড ভেঙ্গে এগিয়ে যায়।

এর আগে বেগম খালেদা জিয়ার দুই মামলার বিচারকাজ চলা ঢাকার বকশীবাজারের আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত ঢাকার ৫নং বিশেষ জজ আদালত এবং হাইকোর্টের মাজার গেট এলাকায় ব্যাপক ধরপাকড় চালায় পুলিশ। সেখান থেকে বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের প্রায় অর্ধশতাধিক নেতাকর্মীকে আটক করে।

এর আগে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে দুই মামলায় হাজিরা দিতে আদালতে যাচ্ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। এসময় তাঁর গাড়িবহরে বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠনের বিপুল নেতাকর্মী সঙ্গে ছিলেন। সকাল পৌনে ১১টার দিকে বেগম খালেদা জিয়ার গাড়িবহর হাইকোর্টের মাজার গেট অতিক্রমকালে ১২ জন নেতাকর্মীকে আটক করে পুলিশ। এরপর কয়েক পুলিশ দফা অভিযান চালায়।
– এনভি

Top