দোয়ারার বাংলাবাজার থেকে ব্যবসায়ীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার, আটক ৭

IMG_20181109_213126.jpg

এম এ মোতালিব ভুইয়া:
সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলার বাংলাবাজারে থেকে ব্যবসায়ীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহতের নাম তৌহিদ হোসেন (২৫)। সে বাংলাবাজার ইউনিয়নের কলাউরা গ্রামের (মাদ্রাসা পাড়া)মৃত ওহিদ মিয়ার পুত্র। সে কলাউরা বাজারে বিকাশ এজেন্টের ব্যবসায়ী। শুক্রবার সকালে বাংলাবাজার জুনাকী জুয়েলার্সের নীচে মাটিতে গলাকাটা লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করেন এবং ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতারে চেষ্টা করেন।

পরিবার,পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে যানাযায়,,
নিহত তৌহিদ কলাউড়া বাজারে বিকাশ এজেন্টের ব্যবসা করতো।সে বৃহস্পতিবার টাকা উত্তোলনের জন্য ছাতক গিয়েছিল রাতে বাড়ীতে ফিরেনি,এলাকাবাসী ও পুলিশের ধারণা গতকাল রাতে বাড়ী ফেরার পথে খুনিরা তাকে ধরে নিয়ে আসে বাংলাবাজার ইউনিয়ন ভবনের সামনে একটি দোতলা কক্ষে। সেখানেই তাকে জবাই করে লাশ দোতলা থেকে ফেলে খুনিরা পালিয়ে যায়। ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে ৭জনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃতরা হলেন উপজেলার বাংলাবাজার ইউনিয়নের বাশতলা গ্রামের ব্যবসায়ী নুরুল ইসলামের ছেলে শামীম শামীম আহমদ, মৃত তৈয়ব আলীর ছেলে ব্যবসায়ী নুরুল ইসলাম, ব্যবসায়ী নুরুল ইসলামের ছেলে শামছুল ইসলাম ও রাশেল মিয়া, বিসমিল্লাহ গার্মেন্সের কর্মচারী রাশেল মিয়া,কলাউড়া গ্রামের অহিদ মিয়ার ছেলে ইসমাঈল হোসেন,চৌধুরীপাড়া গ্রামের ডাঃআলম সিকদারের ছেলে আরাফাত মাসুদ সিকদার।
এ ব্যাপারে দোয়ারাবাজার থানার ওসি সুশীল রঞ্জন দাস আটকের খবর নিশ্চিত করে বলেন, তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য আটক করা হয়েছে।কি কারণে তাকে হত্যা করা হয়েছে বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে,লাশ ময়না তদন্তের জন্য সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

Top