জগন্নাথপুরে আওয়ামী রাজনীতির নির্ভীক কর্মী রমজান আলী ছানা

poto-6.jpg

স্টাফ রিপোর্টার :
সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে আ.লীগের রাজনীতিতে নির্ভীক এক কর্মীর নাম হচ্ছে রমজান আলী ছানা। তিনি জগন্নাথপুর উপজেলার রাণীগঞ্জ ইউনিয়নের ঘোষগাঁও গ্রামের মৃত ফজল উল্লার ছেলে।
জানাগেছে, রমজান আলী ছানা ১৯৯৭ সালে এইচএসসি পাশ করেন। তবে ১৯৯৫ সাল থেকে তিনি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে আ.লীগের ছাত্র রাজনীতিতে যোগ দেন। এরপর থেকে তিনি সক্রিয়ভাবে দলের প্রতিটি কর্মসূচিতে অংশ গ্রহন করতে থাকেন। একটানা দীর্ঘ ২৩ বছর তিনি রাজনীতিতে সক্রিয় থাকলেও পিছিয়ে রয়েছেন সুযোগ-সুবিধা ও পদবীতে। বর্তমানে তিনি জগন্নাথপুর উপজেলা যুবলীগের সহ-সম্পাদক এর দায়িত্ব পালন করছেন।
জানাযায়, রমজান আলী ছানা একজন সাদামাটা মানুষ। নম্রতা ও ভদ্রতায় তিনি সবার আগে রয়েছেন। এর মধ্যে দল অনেকবার ক্ষমতায় আসলেও দলের নির্ভীক এই কর্মী রমজান আলী ছানার ভাগ্যের পরিবর্তন হয়নি। তিনি সব সময় দলের জন্য শ্রম দিয়ে গেছেন। কখনো কিছু পাওয়ার প্রত্যাশা করেননি। যে কারণে দলও তার প্রতি তেমন একটা মূল্যায়ন করেনি।
খোঁজ-খবর নিয়ে জানা যায়, রাজনীতিতে রমজান আলী ছানার অনেক জুনিয়র কর্মীরাও বর্তমানে নেতা হয়ে গেছেন। হয়েছেন অঢেল সম্পত্তির মালিক। অথচ রমজান আলী ছানা এখনো কর্মীই রয়ে গেলেন। এমন একজন নির্ভীক কর্মী দলে তেমন একটা পাওয়া যায় না। তাই রমজান আলী ছানার মতো কর্মীদের অবশ্যই যথাযথ মূল্যায়ন করা অতীব জরুরী।
এ ব্যাপারে রমজান আলী ছানা বলেন, আমি রাজনীতি করি মানুষের কল্যাণের জন্য। দল আমাকে কি দিল তা দেখার বিষয় নয়। তবে কর্মীদের যথাযথ মূল্যায়ন করলে কাজের অগ্রগতি বৃদ্ধি পায়। তাই দলের তৃণমুল পর্যায়ের সাধারণ কর্মীদের মূল্যায়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন রমজান আলী ছানা। #

Top