হালদা নদী থেকে কন্যা শিশুর লাশ উদ্ধার

39386296_2056850784632846_3490708230005325824_n.jpg

সাইফুল ইসলাম :

ফটিকছড়ি উপজেলার সমিতিরহাট ইউনিয়নেস্থ ধুরুম মুখী হালদার বেড়িবাঁধ থেকে ইসমোতার(২) নামে এক শিশুর লাশ উদ্ধার হয়েছে।

গত কাল (১৬ আস্ট) দুপুর দুইটার সময় হালদা নদী ধুরুমের মুখ বেড়িবাধে আটকে থাকা শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়।

হালদা নদী থেকে উদ্ধার হওয়া শিশু কন্যা ইসমোতারা ফটিকছড়ি সমিতিরহাট ইউনিয়নের পশ্চিম ছাদেক নগরস্থ বিল্লা হানিফ বাড়ীর সিএনজি চালক হাসান ড্রাইভারের কন্যা।
হানিফের এক ছেলে ও এক মেয়ের মধ্য ইসমোতারা ছোট।

পরিবার সূত্র জানাগেছে, বাড়ির উঠানে খেলা করতে গিয়ে সবার চোখে ফাঁকি দিয়ে উধাও হয়ে যাওয়া মেয়েটি হালদা নদীতে পড়ে যায়। সবখানে খোঁজার পর মেয়েটিকে পাওয়া না গেলে অবশেষে সকালে নদীতে খোঁজার উদ্দেশ্যে বের হয়। অনেক খোঁজা খুঁজির পর পেশকারহাট, ধুরুমের মুখ ঘাটে ভেসে যেতে দেখা যায়। ধুরুমের মুখে নতুন বেড়িবাঁধে আটকা পড়লে সেখান থেকে উদ্ধার করা হয়।

নদী থেকে লাশ তুলে বাড়ীতে আনা হলে বাড়ীতে শোকের ছায়া নেমে আসে। শিশুটিকে পারিবারিক কবর স্থানে দাফন করা হয়।
Type a message…

Top