বেনাপোল বন্দরে বিজিবির তদারকি প্রত্যাহারে বাণিজ্য সচল

11111-1.jpg

মোঃ রাসেল ইসলাম,বেনাপোল(যশোর) প্র‌তি‌নি‌ধি:
যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দরে আমদানি-রফতানি বাণিজ্যে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যদের তদারকি তুলে নেওয়ায় বাণিজ্যিক কার্যক্রম সচল করেছেন কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।
সোমবার (১৫ জুলাই) রাত ৯টা থেকে এ পথে ভারতের পেট্রাপোল বন্দরের সঙ্গে বেনাপোল বন্দরের পুনরায় বাণিজ্য শুরু হয়।
এর আগে ১৪ জুলাই সন্ধ্যায় বেনাপোল বন্দরের চেকপোস্ট কাস্টমস কার্গো শাখার ওয়েং স্কেলে বিজিবি সদস্যরা আমদানি বাণিজ্যে কাস্টমসের সঙ্গে যৌথ তদারকি শুরু করলে কাস্টমস প্রতিবাদ জানিয়ে বাণিজ্যিক কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়। বিজিবির দাবি ছিল বন্দরে চোরাচালান ও অনিয়ম প্রতিরোধে তাদের কাজ করার অনুমতি ছিল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের। কিন্তু কাস্টমস বিজিবির হঠাৎ এ তদারকি মানতে নারাজ। স্থানীয় ব্যবসায়ীরা কাস্টমসের সঙ্গে ছিল একমত। এতেই বাধে বিপত্তি।
বেনাপোল কাস্টমস হাউজের ডেপুটি কমিশনার সৈয়েদ আহম্মেদ সায়েদ রুবেল জানান, বন্দরের দু’টি ওয়েং স্কেল থেকে বিজিবি সদস্যদের প্রত্যাহার করে নেওয়ায় পুনরায় বাণিজ্যিক কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে।
এদিকে, গত দু’দিন আমদানি-রফতানি বাণিজ্য বন্ধ থাকায় অচলাবস্থার কবলে পড়ে ব্যবসায়ীরা প্রায় ৫ কোটি টাকা লোকশানের শিকার হয়েছেন। পণ্য সরবরাহ বন্ধ থাকায় ব্যাহত হয়েছে দেশের শিল্প কারখানার উৎপাদন কার্যক্রম।
বেনাপোল বন্দর পরিচালক আমিনুল ইসলাম জানান, দু’দিন আমদানি-রফতানি বাণিজ্য বন্ধ থাকায় বন্দরে পণ্য জটের সৃষ্টি হয়েছিল। আটকে থাকা পণ্য যাতে দ্রুত খালাস দেওয়া যায় তার জন্য সংশ্লিষ্ট সবাইকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Top