সুনামগঞ্জে হাওরাঞ্চলের কৃষকদের ভাগ্যোন্নয়নে গণশুনানী অনুষ্ঠিত

33858173_1543984132396966_6455842875367227392_n.jpg

সুনামগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি ::
সুনামগঞ্জের হাওরাঞ্চলের কৃষকের ভাগ্যোন্নয়নে সুপারিশ গ্রহণের লক্ষ্যে বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের সর্বদলীয় সংসদীয় গ্রুপ (এপিপিজিস) ও সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মঙ্গলবার সকালে স্থানীয় সার্কিট হাউসে গণশুানী অনুষ্ঠিত হয়েছে। ‘দারিদ্র্য বিমোচন ও মৌলিক মানবাধিকার নিশ্চিতকরণে আমাদের করণীয়’ শীর্ষক এই গণশুনানীতে স্থানীয় রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, ছাত্র-যুব প্রতিনিধি, উন্নয়ন ও মানবাধিকার কর্মীসহ বিভিন্ন পেশাজীবী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। মঙ্গলকার সকাল ১০টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত সুনামগঞ্জ সার্কিট হাউসে এই গণশুনানী অনুষ্ঠিত হয়। এতে স্থানীয়রা হাওরের ফসরক্ষায় পরিবেশ ও প্রকৃতি রক্ষা করে স্থায়ী পদ্দতি বের করার পাশাপাশি হাওরাঞ্চলের জন্য আগাম পাকে এমন ধান আবিষ্কারের আহ্বান জানান। অনুষ্ঠানে বক্তারা হাওরের প্রাকৃতিক বৈচিত্রতা ও পরিবেশ মাথায় রেখে উন্নয়ন অবকাঠামোর পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়নের দাবি জানান।
গণশুনানীতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবং যুব, কর্মসংস্থান ও তথ্য প্রযুক্তি সর্বদলীয় সংসদীয় গ্রুপ এর কো চেয়ারম্যান মো. আবদুল ওয়াদুদ এমপি।
সুনামগঞ্জর জেলা প্রশাসক মো. সাবিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত গণশুনানীতে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন জাতীয় সংসদের সর্বদলীয় সংসদীয় গ্রুপ’র কো-চেয়ার অ্যাড. সানজিদা খানম এমপি, সুনামগঞ্জ-১ আসনের এমপি মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, সুনামগঞ্জ-৪ আসনের এমপি অ্যাড. পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের সর্বদলীয় সংসদীয় গ্রুপ সমূহের সেক্রেটারী জেনারেল শিশির শীল, পুলিশ সুপার বরকতুল্লাহ খান, অক্সফ্যাম বাংলাদেশের পরিচালক এম বি আখতার, হেকস/ ইপিইআর বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর অনীক আসাদ ও সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে হাওরের স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিরা নানা বিষয়ে পরামর্শ ও মতামত দেন।

Top