মাদ্রাসা শিক্ষার উন্নয়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে সরকার: নদভী

received_2078187815791982.jpeg

মোঃ মিছবাহ উদ্দিন,ঈদগাও#

‘বাংলাদেশ সরকার শিক্ষা খাতে ব্যাপক কাজ করে যাচ্ছে। বিশেষ করে মাদ্রাসা শিক্ষার উন্নয়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে সরকার। পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠি ও অবহেলিত জনপদে শিক্ষা বিস্তারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সু-নজর রয়েছে ।

৪ মে (শুক্রবার) কক্সবাজার সদরের ইসলামাবাদ ইউনিয়নের দারুসসালাম একাডেমীর বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অথিতির বক্তব্যে চট্টগ্রাম-১৫ (সাতকানিয়া-লোহাগাড়া) সংসদীয় আসনের এমপি প্রফেসর ড. আবু রেজা মোহাম্মদ নেজাম উদ্দীন নদভী এসব কথা বলেন ।

প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা কমিটির সভাপতি আলহাজ মোজাহের আহমদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন প্রতিষ্ঠানটির প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক ও দাতব্য সংস্থা আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তা মোহাম্মদ ওয়ায়েস, কক্সবাজার সদর উপজেলা যুবলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক নাছির উদ্দিন জয়, ইসলামাবাদ ইউনিয়নের সদস্য আবু বক্কর ছিদ্দিক বান্ডি, খুটাখালী তমিজিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা ওমর হামজা, সাংবাদিক তৈয়ব জালাল, শিক্ষক নুরুল হুদা প্রমুখ ।

এসময় বক্তারা বলেন, ইসলামাবাদের এক অবহেলিত জনপদে দারুসসালাম একাডেমীর মত একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ার ফলে এলাকার ঝড়ে পড়া শিশু-কিশোরদের শিক্ষা বিস্তারে সুযোগ হচ্ছে । পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটির ধারাবাহিক সাফল্য অব্যাহত রাখতে সকলের আন্তরিক সহযোগিতা কামনা করেন ”

বক্তারা আল্লামা ফজলুল্লাহ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. প্রফেসর আবু রেজা নেজাম উদ্দীন নদভী এমপিকে ধন্যবাদ জানান এবং দারুস সালাম একাডেমীর শিক্ষার্থীদের সরকারি পরীক্ষায় অসামান্য কৃতিত্বের জন্য ভূয়সী প্রশংসা করেন ।

তাছাড়াও অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ইসলামাবাদ ইউপি সদস্য আব্দু শুক্কুর, প্রধান শিক্ষক হাফেজ নুরুল আলম, পরিচালনা কমিটির সদস্য ওবাইদুর রহমান উবাইদু, অভিভাবক সদস্য জাফর আলম, অভিভাবক সদস্য জাফর আলম, সাংবাদিক শেফাইল উদ্দীন, মিজানুর রহমান আজাদ, এইচ এন আলম, মিছবাহ উদ্দিন, শাহেদ মোস্তফা, শফিউল আলম, আউলিয়াবাদ সমাজ কমিটির সভাপতি শাহ আলম কোম্পানী, বাম বাগান সমাজ কমিটির নেতা বেলাল উদ্দিন, মাষ্টার আব্দুল করিম বিএ, জেলা ছাত্রলীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক আনোয়ারুল আজিম খোকন, বাস শ্রমিক সংগঠনের প্রভাবশালী সদস্য সৈয়দ আলম শিমুল, ডাক্তার শাহ আলম, শিক্ষক মনির আহমেদ, মাওলানা জুনাঈদ, হাফেজ নুরুল হুদা, রিদুয়ান সিফাত, নাঈম চৌধুরী, হাফেজ ঈসা, তাসলিমা আক্তার, মোহছেনা বেগম ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গসহ হাজারো মানুষ ।

অনুষ্ঠানে ১১ জন হাফেজে কুরআনকে পাগড়ী পড়িয়ে দেন খুটাখালী তমিজিয়া ফাজিল মাদ্রাসার সাবেক উপাধ্যক্ষ মাওলানা আব্দু ছমদ এবং বিশিষ্ঠ আলেমে দ্বীন হাফেজ জাবের ।

পরে দারুসসালাম একাডেমীতে একটি দ্বিতল একাডেমিক ভবন এবং একটি অত্যাধুনিক জামে মসজিদ শুভ উদ্বোধন করেন প্রফেসর ড. আবু রেজা নেজাম উদ্দীন নদভী এমপি ও অন্যান্য অতিথিবৃন্দ।

Top