দোয়ারাবাজারে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষের খামখেয়ালিপনায় আট মাস ধরে মাদ্রাসা বন্ধ

images-1-6.jpg

এম এ মোতালিব ভুঁইয়া :
দোয়ারাবাজারে পল্লী বিদ্যুতে কর্তৃপক্ষের খামখেয়ালিপনায় দীর্ঘ আট মাস ধরে একটি মাদরাসা তালাবদ্ধ রয়েছে। উপজেলার মান্নারগাঁও ইউনিয়নের জামেয়া ইসলামিয়া শ্যামলবাজার (বান্দেরবাজার) মাদরাসায় এ ঘটনা ঘটে।
সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, ১৯৯৭ সালে ওই কওমি মাদরাসাটি প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর ২০০৮ সালে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ অপরিকল্পিতভাবে ওই প্রতিষ্ঠানের টিনশেড ঘরের ওপর দিয়ে চার লাইনের তার টানানোর ফলে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ে। টিনশেডের মাত্র দুই ইঞ্চি উপর দিয়ে তার টানার ফলে প্রতি বছর মাদরাসা ঘরের টিন লাগানো সম্ভব হয় না। এ ব্যাপারে বারবার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষসহ খোদ স্থানীয় সংসদ সদস্য মুহিবুর রহমান মানিকের নিকট লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোনো প্রতিকার পাননি মাদরাসা কর্তৃপক্ষ। বর্তমানে প্রতিষ্ঠানটি আট মাস ধরে বন্দ রয়েছে।

প্রতিষ্ঠান প্রধান মাওলানা বদরুল ইসলাম বলেন, আমরা বিদ্যুতের লাইন স্থানান্তরিত করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ সহ স্থানীয় এমপি মহোদয়কে অবহিত করেছি। এমপি পল্লী বিদ্যুতের কর্তৃপক্ষকে জরুরি ভিত্তিতে বিদ্যুৎ লাইন মাদরাসা ঘরের উপর হতে সরানোর জন্য নির্দেশ দিলেও কর্তৃপক্ষ এখনো কোনো উদ্যোগ নিচ্ছে না। টিনশেডের উপর বিদ্যুৎ লাইন পড়ে যাওয়ায় প্রতিষ্ঠানের টিনশেড ঘর সংস্কার করতে না পেরে বর্তমানে প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ রয়েছে।
এলাকার শিক্ষার্থী অভিভাবকরা জানান, দীর্ঘ দিন ধরে পল্লী বিদ্যুতের তার না সরানোর ফলে বর্তমানে মাদরাসা বন্ধ থাকায় ছাত্রদের লেখাপড়া বিঘ্নিত হচ্ছে। অবিলম্বে বিদ্যুৎ লাইন সরানো না হলে মাদরাসা রক্ষার্থে এলাকাবাসী আন্দোলনের ডাক দিবে।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি সুনামগঞ্জের জিএম ওকিল কুমার সাহা বলেন, বিষয়টি খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে ৤

Top