জামালগঞ্জে ধান কাটার শ্রমিক সংকটে দূশ্চিন্তায় কৃষকগণ

30008169_1927558847274853_203113347_n.jpg

ফাইল ছবি

জামালগঞ্জ প্রতিনিধি::

জামালগঞ্জ উপজেলার সব হাওরে এবার বোর ধানের ফলন ভাল হয়েছে।আর কিছুদিন পরেই শুরু হবে ধান কাটার মহা-উৎসব।
উপজেলার কিছু সংখ্যক হাওরে অাগুল্যা জাতের কিছু ধান কাটার খবর পাওয়া গেছে।তবে তা একেবারে মোটের উপরে নগন্য।
গেল বছরে ফসল হানির পর কৃষকদের সারা বছর অনেক দু:খ কষ্টে দিনাতিপাত করতে হয়েছে।অনেক কৃষক দাদন ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে ঋন করে জমিতে ধান ফলিয়েছেন।গত বছরের তুলনায় চলতি বছর প্রাকৃতিক অবস্হা ভাল থাকায় ও হাওর রক্ষা বাঁধ হওয়ায় কৃষকরা কিছুটা স্বস্তিতে রয়েছেন।
উপজেলা জুড়ে ধান কাটার শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে।বালু পাথর কয়লা কাজ চলমান থাকায় শ্রমিক সংকট সৃষ্টি হয়েছে। জানাযায়,জামালগঞ্জে দেশের বিভিন্ন জেলা উপজেলার প্রায় ৩০ হাজার শ্রমিক কাজ করে।এদের মধ্যে পাবনা,সিরাজগঞ্জ, টাঙ্গাইল,ফরিদপুর,সিলেট সহ তাহিরপুর উপজেলার লাউরগড় এলাকার শ্রমিক ধান কাঁটার কাজ করত।স্হানীয় ভাবেও গ্রুপে গ্রুপে ভিবক্ত হয়ে ধান কাটে শ্রমিকরা। এসব শ্রমিকদের সাথে যোগাযোগ করেও শ্রমিক জোগাড় করতে পারছেন না বেশীর ভাগ কৃষক।
এসব বিষয়ে জানতে চাইলে, বেহেলীর ইউপি সদস্য মশিউর রহমান বলেন,সর্দারগণ ধান কাটার শ্রমিক সংকট দেখিয়ে কৃষকদের কাছে বাড়তি মুজুরি ও সুবিধা দাবি করছেন।
পাগনার হাওরের লক্ষীপুর গ্রামের কৃষক সুরমান উদ্দিন বলেন বলেন,এবছর শ্রমিক পাওয়া যাচ্ছে না।তাহিরপুর এলাকায় কয়লা ও বালুর কাজ চলমান থাকায় শ্রমিক ধান কাটতে আসছেনা।শ্রমিক না পেলে ধান নিয়ে দূর্ভোগে পড়তে হবে।তিনি বৈশাখ মাসের জন্য কয়লা বালুর কাজ বন্দ রাখার দাবি জানান।
হালির হাওর পাড়ের মদনাকান্দি গ্রামের কৃষক দেবাশীষ বলেন,আমি ৬ হাল বোর জমি করেছি এখন পর্যন্ত ধান কাটার বেপারি বা শ্রমিক পাইনি।নেত্রকোনার এক পার্টির সাথে আলোচনা করেছি তারা ৮শত থেকে ১হাজার টাকা রোজ চায়।সব সময় ৭ভাগা ধানে ধান কাটলেও এখন বেপারি না পাওয়ায় বেশী টাকা দাবি করছে।শ্রমিক না পাওয়ায় দূশ্চিন্তায় আছি।
ভীমখালী ইউনিয়নের কৃষক তহুর মিয়া বলেন,বেপারি পাইনি। বেপারি না পেলে অধিক মূল্যে ধান কাটতে হবে এতে আমরা ক্ষতিগ্রস্ত হব।
একদিকে শ্রমিক জোগাড়ের চেষ্টায় কৃষকরা বিভিন্ন জায়গায় ধরনা দিচ্ছেন অন্যদিকে তাদের কষ্টার্জিত ফসল ঘোলায় তোলার জন্য  প্রস্তুতি সম্পন্ন করছেন।তারা ধান শুকানোর জন্য খলা তৈরী, মাড়াই মেশিন মেরামত করা,ধান বহন করার জন্য বস্তা,উড়া,দুছুন,ধান প্রক্রিয়াজাতের জন্য কুলা,গো-খাদ্য ধানের খড় শুকানোর জন্য হোকল,ধান কাটার জন্য কাচি সহ গৃহস্থালির সকল উপকরন ঠিকটাক করে রাখছেন কৃষকগন।
Top